কেশবপুরে পরিবহন নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খালের ভেতর, আহত ১২

আগের সংবাদ

বাংলাদেশ প্রথম নারী রেফারি সালমা

পরের সংবাদ

কমলনগরে সরকারি রাস্তায় বাঁশের বেড়া, ভোগান্তিতে ২৫ পরিবার

প্রকাশিত: আগস্ট ১৬, ২০২১ , ৯:৫৫ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ১৬, ২০২১ , ৯:৫৭ অপরাহ্ণ

কমলনগরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে মানুষজনের চলাচলে ভোগান্তির সৃষ্টির অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় বিরোধ চলছে। যে কোন মুহুর্তে ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা, এমন আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার চরমার্টিন ইউপির ৫ নম্বর ওয়ার্ড চৌধুরী বাজারের কাছে চা দোকানী আবুল খায়েরের বাড়ি সংলগ্ন সরকারি রাস্তায়।

জানা যায়, নদীভাঙ্গার শিকার ২৫টি পরিবার ঘরবাড়ি উঠিয়ে দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে বসবাস করে আসছে। ২৫টি পরিবারের বাড়িতে প্রবেশ ও চলাচলের একমাত্র রাস্তা এটি। সম্প্রতি এক নারী সরকারি রাস্তাটি নিজের জমির ওপর দাবী করে বাঁশের কঞ্চি দিয়ে বেড়া দেয়। এতে অন্তত ৫’শ মানুষের দৈনন্দিন চলাচলে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে।

ভুক্তভোগী পরিবারের আবুল খায়ের, মো. নিশাদ, আবি আবদুল্লাহ, মো. হারুন, নুরনবী, শিরাজ, আ. খালেক, আমানউল্লাহ, ছায়েরা, রোকেয়া, জয়নাল, সফিক, রফিক, আবুল কালাম ও তারেক জানান, প্রায় দুই কিলোমিটার দূরের বাসিন্দা মৃত এছহাক মাস্টারের মেয়ে মুন্নী তাদের চলাচলের একমাত্র রাস্তাটি নিজের জমি দাবী করে বাঁশের কঞ্চির বেড়া দিয়ে আটকে দিয়েছে। মুন্নিকে এ কাজে বাধা দিলে খারাপ গালমন্দ করেন ও দা নিয়ে কোপাতে ছুটে আসেন। পরে ঘটনাটি ইউপি চেয়ারম্যান ইউসুফ আলী মিয়া ও স্থানীয় মেম্বার শাহাবউদ্দিনকে জানালে তারা মুন্নির বিচার করতে পারবেন না বলে জানান।

অভিযুক্ত মুন্নি বলেন, রাস্তাটি সরকারের নয়, এটি আমার জমির ওপর করা হয়েছে। তাছাড়া আমার এক নিকট আত্মীয়ের সঙ্গে তাদের বিবাদ রয়েছে। কাজেই আমার রাস্তা দিয়ে আর চলাচলের সুযোগ দিব না বলেই আমি রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছি।

রাস্তাটি সরকারের হলে সরকার এসে রাস্তা খুলে দিক এমনটাই দম্ভোক্তি করলেন মুন্নি।

এ বিষয়ে ইউপি সদস্য শাহাবুদ্দিন বলেন, আমি চেষ্টা করে ব্যার্থ হয়েছি। তাছাড়া রাস্তাটি কয়েক মাস আগে সরকারি অর্থায়নে মেরামত করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ইউসুফ আলী মিয়া বলেন, বিষয়টি মীমাংসা করার চেষ্টা চলছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান বলেন, সরকারি রাস্তা বন্ধ করার অধিকার কারো নেই। খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে আস্বস্ত করেন তিনি।

ডি-আরআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়