যেসব কারণে বিতর্কিত পরী মনি

আগের সংবাদ

চরফ্যাশনে ৫শ কেজি জেলে চাল জব্দ

পরের সংবাদ

পরী মনি: অভিনয়ের চেয়ে বেশি সমালোচিত

প্রকাশিত: আগস্ট ৪, ২০২১ , ৬:৩৫ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ৪, ২০২১ , ৬:৫৪ অপরাহ্ণ

সমালোচিত চিত্রনায়িকা পরী মনিকে ঘিরে বিতর্কের শেষ নেই। রাত-বিরাতে ক্লাব, রিসোর্ট ও তারকা হোটেলে ঘুরে বেড়ানো এবং মদ্যপান করে উশৃঙ্খল আচারণের জন্য তিনি সমালোচিত। শুটিংয়ে গিয়েও তিনি নিখোঁজ হতেন, পরিচালকদের ভোগাতেন। একাধিক বিয়ে এবং ডিভোর্সের অভিযোগও রয়েছে তার বিরুদ্ধে। সিনেমা হিট না হলেও তার বিলাসী জীবন, ঘনঘন বিদেশ সফর নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। সর্বশেষ সাভারের বোটক্লাবে মদ পান করে আলোচনায় আসেন তিনি। ওই ঘটনায় তার দায়ের করা মামলায় একজন ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার হন। এর আগে গুলশানের অলকমিউনিটি ক্লাবে ড্রেসকোড ভঙ্গ করে প্রবেশ করে সমালোচিত হন তিনি। অভিনয়ে যতোটা না তিনি নাম কামিয়েছেন তার চেয়ে অপকর্মের কারণে বেশি হয়েছেন সমালোচিত।

জানা গেছে, পরী মনির স্কুল জীবন কেটেছে সাভারে। তিনি সাভার গার্লস স্কুল এব কলেজের ছাত্রী। ছাত্রী অবস্থায় দুটি বিয়ে করে এবং ডিভোর্স দিয়ে সাভার ছাড়েন তিনি। কলেজ শিক্ষককে বিয়ে করে সমালোচিত হন তিনি। সাভার রাজাবাড়ি মহল্লায় থাকাকালীন থানা বাসস্ট্যান্ডে রাত্রী বিউটি পার্রারে তিনি কাজ শিখতেন। পরে রাজফুলবাড়িয়া এলাকায় থাকতেন।

হঠাৎ করে তারকা বনে যাওয়া পরীমনি বোট ক্লাবের ঘটনা প্রসঙ্গে দাবি করেন, ৮ জুন রাতে পারিবারিক বন্ধু অমি ও ব্যক্তিগত রূপসজ্জাশিল্পী জিমির সঙ্গে বাইরে বের হয়েছিলেন তিনি। রাত তখন ১২টা পেরিয়েছে। বন্ধুটি তাদের নিয়ে যান আশুলিয়ার ওই ক্লাবে। সেখানে মদ্যপানরত কয়েকজন ব্যক্তির সঙ্গে পরী মনির পরিচয় করিয়ে দেন অমি। ওই ব্যক্তিদেরই একজন হঠাৎ জোর করে তার মুখে পানীয়ের গ্লাস চেপে ধরে এবং শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে। এ সময় মারধর করা হয় পরীর সঙ্গে থাকা জিমিকেও। এ ঘটনায় পরী নাসির উদ্দিন আহমেদ নামে একজন প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ীকে দায়ী করেন। ঘটনার পরপরই বনানী থানায় অভিযোগ করতে গিয়েছিলেন পরীমনি। তিনি অভিযোগ করেন, সে সময় দায়িত্বপ্রাপ্ত কোনো কর্মকর্তা তার অভিযোগ রেকর্ড করেননি। বরং সকালে এসে অভিযোগ করার পরামর্শ দেন। এ সময় পুলিশের সাহায্যে পরী মনি হাসপাতাল পর্যন্ত গিয়েও আতঙ্কবশত চিকিৎসা না নিয়েই বাড়ি ফিরে যান। এই ঘটনায় ভেঙে পড়েন পরী মনি। ভীষণ অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। এর আগে ‘আমাকে রেপ এবং হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে’ অভিযোগ করে নিজের ভ্যারিফায়েড ফেসবুক পোস্টে এ অভিযোগ করেন ঢালিউডের আলোচিত নায়িকা পরী মনি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে বিচার দাবি করেছেন তিনি। রাতে নিজের বনানীর বাসায় এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে ঘটনার প্রকাশযোগ্য বিস্তারিত জানান এই ঢালিউড তারকা।

এদিকে ওই ঘটনার পর পরী মনির কান্না এবং ঢং দেখে অনেকে বিস্মিত হন। ওই মামলার তদন্তে পুলিশ জানতে পারে পরী মনির জিঘাংসার কথা। এরপর তার বনানীর বাসায় মিনি বারের ছবি ও খবর ফাঁস হয়। র‌্যাবের কাছে এন্তার অভিযোগ জমা পড়ে। এরপর বুধবার দুপুর থেকে র‌্যাব তার বাসার সামনে টহল জোরদার করে। বিকালে শুরু হয় অভিযানে। মাদক ও প্রতারনার অভিযোগে তাকে আটক করা হতে পারে বলে জানা গেছে।

ডি-আরআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়