গৃহবধূকে হাত পা-বেঁধে নদীতে ভাসিয়ে হত্যা চেষ্টা

আগের সংবাদ

প্রধানমন্ত্রীর ফেলোশিপ পাবেন ৫৫ জন

পরের সংবাদ

বিদেশি ঋণ নয়, উন্নয়নের অংশীদার চায় বাংলাদেশ

প্রকাশিত: জুলাই ৩১, ২০২১ , ১০:৫০ পূর্বাহ্ণ আপডেট: জুলাই ৩১, ২০২১ , ১১:২২ পূর্বাহ্ণ

বিদেশি ঋণ নয়, বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের অংশীদার চায়। বাংলাদেশের অর্থনীতি সুদৃঢ় অবস্থানে রয়েছে। এখন মানুষের জীবনমান আরও এগিয়ে দিতে উন্নয়নের অংশীদার প্রয়োজন।

শুক্রবার (৩১ জুলাই) যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলেস বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন আয়োজিত ‘দ্য রাইজ অফ বেঙ্গল টাইগার: পটেনশিয়াল অফ ট্রেডে অ্যান্ড ইনভস্টেমন্টে ইন বাংলাদশে’ র্শীষক রোড শোতে বক্তারা এ কথা বলনে। বিদেশি বিনিয়োগকারী, প্রবাসী বাংলাদেশি এবং সরকারের অর্থনীতি সংশ্লিষ্ট নীতিনির্ধারকরা এই রোড শো তে উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প খাত ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান এমপি, সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের চেয়ারম্যান প্রফেসর শিবলী রুবায়েত উল ইসলাম, বিডার নির্বাহী চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলাম, বাণিজ্যসচিব তপন কান্তি ঘোষ, সিটি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসরুর আরেফিন, আইএফআইসি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, শাহ আলম সরকার ও এনআরবি সিআইপি অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক কাজী সারওয়ার হাবিব বক্তব্য রাখেন।

বাংলাদেশের বিনিয়োগ সুবিধার উপরের তিনটি প্রবন্ধ পাঠ করেন সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত উল ইসলাম, ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক তাকসিম এ খান এবং বেপজার নির্বাহী চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল নজরুল ইসলাম।

প্রফেসর শিবলী রুবাইত উল ইসলাম তার মূল প্রবন্ধে বিভিন্ন খাতে বাংলাদেশের অগ্রগতির কথা তুলে ধরনে। তিনি বলেন, আমাদের ঋণ বা সহযোগিতার প্রয়োজন নেই।

আমরা উন্নয়নের অংশীদার চাই। বাংলাদেশের উন্নয়নের ৯৮ শতাংশ এখন দেশীয় অথনীতি নির্ভর। বিদেশি ঋণ নিয়ে আমাদের আর উন্নয়ন করতে হয় না। আমাদের দরকার উন্নয়নের অংশীদার। মুক্তিযুদ্ধের পর বাংলাদেশের অর্থনীতি যাত্রা শুরু করেছিল ঋণাত্বক অবস্থান থেকে। বাংলাদেশের অর্থনীতির এ রকম শক্তিশালী অবস্থান সম্ভব হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃঢ় নেতৃত্বের কারণে।

ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার তাকসিম এ খান ঢাকা ওয়াসাতে বিনিয়োগের সুবিধা র্শীষক উপস্থাপনা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, ঢাকা শহর পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সরকারি খাতের পানি সরবরাহ ব্যবস্থাপনা। ঢাকা ওয়াসার সার্বিক ব্যবস্থাপনাকে ডিজিটালাইজড করা হয়েছে।

অনুষ্ঠানের প্রশ্নোত্তর পর্বে প্রবাসীরা তাদের বিনিয়োগের ক্ষেত্রে বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন। বিশেষ করে কোম্পানি খোলার জন্য যে আমলাতান্ত্রিক জটিলতার এবং অন্যান্য অসুবিধার অনেক দেশের চাইতে বেশি।

একজন প্রবাসী বাংলাদেশি বিমানবন্দরে তাদের সঙ্গে হয়রানির কথা তুলে ধরেন এবং প্রবাসীদের জন্য আলাদা এনআরবি গেট খোলার প্রস্তাব দেন। ইর্স্টান ব্যাংক লিমিটেড, নগদ এবং ওয়ালটন এই রোড শো আয়োজনে সহযোগিতা করেছে।

এমএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়