অপরাজনীতির বিরুদ্ধে সোচ্চার মাওলানা ভাসানীর ন্যাপ: তথ্যমন্ত্রী

আগের সংবাদ

রাস্তার মাঝখানে রহস্যময় সমাধি

পরের সংবাদ

ডিএসইর নতুন এমডির যোগদান

প্রকাশিত: জুলাই ২৫, ২০২১ , ৪:৩৯ অপরাহ্ণ আপডেট: জুলাই ২৫, ২০২১ , ৪:৩৯ অপরাহ্ণ

দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দিয়েছেন তারিক আমিন ভূঁইয়া।

রবিবার (২৫ জুলাই) সকাল ৯টা থেকে তিনি অফিস শুরু করেছেন। ডিএসই’র প্রকাশনা ও জনসংযোগ বিভাগের উপ-মহাব্যবস্থাপক মো. শফিকুর রহমান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানা গেছে।

এর আগে গত ৪ জুলাই একশ ৮তম পরিচালনা পর্ষদের সভায় ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের পরিচালনা পর্ষদ তাঁকে ডিএসই ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে নিয়োগের সিদ্ধান্ত নেন। ডিএসই বোর্ড অ্যান্ড এ্যাডমিনিস্ট্রেশন রেগুলেশন্স ২০১৩ অনুযায়ী ঐ দিনই নিয়োগের বিষয়টি পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনে অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়। তারিকুল আমিনকে ডিএসইর এমডি পদে গত ৫ জুলাই অনুমোদন দিয়েছে বিএসইসি। এরপরই ডিএসইর থেকে আনুষাঙ্গিক কিছু আনুষ্ঠানিকতা শেষে তাকে এ পদে নিয়োগ দেয়া হয়।

ডিএসই এমডি পদে নিয়োগ চেয়ে তারিকুল আমিন ভূইয়া, অভিজিৎ কুমার সাহা ও মুস্তাফিজুর রহমানের নাম কমিশনে প্রস্তাব করে ডিএসই কর্তৃপক্ষ। যার পরিপেক্ষিতে কমিশন তরিকুল আমিন ভূইয়াকে এমডি পদে নিয়োগে অনুমোদন দিয়েছে কমিশন। ডিএসই সাবেক এমডি সানাউল হক গত বছরের ৮ অক্টোবর ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে পদত্যাগ পত্র জমা দেন। যা ২১ অক্টোবর ডিএসইর পর্ষদ সভায় গৃহীত হয়। পরে তিনি ৭ জানুয়ারি ডিএসই থেকে বিদায় নেন। দীর্ঘ প্রায় ৬ মাস পর এমডি পেতে যাচ্ছে ডিএসই।

ডিএসইতে যোগদানের আগে তিনি বাংলাদেশের অলাভজনক প্রতিষ্ঠান ফ্রেন্ডশিপ এনজিও’র তথ্যপ্রযুক্তি পরামর্শক এবং অস্ট্রেলিয়ার হ্যাশক্লাউড পিটিওয়াই লিমিটেড এর প্রতিষ্ঠাতা সিইও এবং সিটিপিও হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়াও তিনি হ্যাশক্লাউড বাংলাদেশ লিঃ এর নির্বাহী চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

তারিক আমিন ভূঁইয়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইবিএ থেকে এমবিএ ডিগ্রি অর্জন করেন। পরে তিনি ম্যাকোরি বিশ্ববিদ্যালয়, সিডনী, অস্ট্রেলিয়া থেকে মাস্টার অব কমার্স ইন ইনফরমেশন সিস্টেম অ্যান্ড টেকনোলজি। এর পূর্বে তিনি অস্ট্রেলিয়ান ইন্সটিটিউট অব বিজনেস থেকে ম্যানেজমেন্টে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। তারিক আমিন ভূঁইয়া আমেরিকা এবং অস্ট্রেলিয়ার বিভিন্ন স্বনামধন্য ইন্সটিটিউট থেকে ব্লক চেইন এবং চেইঞ্জ ম্যানেজমেন্টের উপর উচ্চতর প্রশিক্ষণ লাভ করেন। তিনি ব্লক চেইনের ওপর গবেষণার জন্য ফ্র্যাঙ্কফুর্ট স্কুল অব ফিনান্স অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট থেকে ‘সার্টিফাইড ব্লকচেইন এক্সপার্ট’ সার্টিফিকেট অর্জন করেন।

এছাড়াও তিনি ডেভেলপ মাস্টার্স কোর্স, অস্ট্রেলিয়ার সিডনীতে পিএমআই-এসিপিসহ বিভিন্ন বিষয়ে প্রশিক্ষণ লাভ করেন। ডিএসই থেকে প্রস্তাব পাঠানো অন্য দুজনের মধ্যে- অভিজিৎ কুমার সাহা হলেন মার্কেন্টাইল ব্যাংকের উপ-প্রধান অর্থ কর্মকর্তা ও মুস্তাফিজুর রহমান সাবেক সচিব।

আর-এমএস/এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়