ঘোর অমানিশায় আস্থার আলোকবর্তিকা শেখ হাসিনা: কাদের

আগের সংবাদ

স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘন করে নামাজ, মালয়েশিয়ায় সেই ৪৮ বাংলাদেশি রিমান্ডে

পরের সংবাদ

দল হারল ৭ গোলে, দুটি আত্মঘাতী গোল করেও প্রশংসিত তিনি

প্রকাশিত: জুলাই ২১, ২০২১ , ১:১৭ অপরাহ্ণ আপডেট: জুলাই ২১, ২০২১ , ১:২০ অপরাহ্ণ

ঘানার ঘরোয়া ফুটবল লিগে এক অভূতপূর্ব ঘটনার সাক্ষী থাকল গোটা বিশ্ব। ঘানা প্রিমিয়ার লিগে আশান্তি গোল্ডের বিপক্ষে ইন্টার অ্যালাইজের ডিফেন্ডার হাশমিন মুসার জোড়া আত্মঘাতী গোলে বিস্মিত হয়ে গিয়েছিল গোটা বিশ্ব। মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায় সেই ভিডিও। এবার সেই গোলে যে তিনি স্বেচ্ছাকৃত করেছিলেন তা স্বীকার করে নিলেন মুসা।

১৭ জুলাই মরশুমের আগেই অবনমিত হয়ে যাওয়া ইন্টার অ্যালাইজ শেষ ম্যাচে ৫-০ গোলে হারছিল। সেই সময় বেঞ্চ থেকে পরিবর্তিত হিসেবে মাঠে নেমে জোড়া আত্মঘাতী গোল করেন মুসা। গোলের ধরন দেখেই সন্দেহ হয়েছিল। এবার সেই সন্দেহই সত্যি হল। মুসা স্বীকার করে নিয়েছেন যে তিনি গোল দুটি স্বেচ্ছায় করেন। তবে তার আসল উদ্দেশ্য ছিল ম্যাচের স্কোরলাইন ঘিরে যে বেট আগে থেকেই নির্ধারিত ছিল, তা পন্ড করা।

মুসা কুসমি এফএমকে জানান, আমি আমার হোটেলে শুনতে পাই যে আমাদের ইন্টার অ্যালাইজ দলের বিপক্ষে ৫-১ ম্যাচ হারার বেট আগে থেকেই নির্ধারিত করা হয়েছে। আমি সেই বেট পন্ড করার জন্যই আত্মঘাতী গোলগুলি করি, কারণ আমি বেটিং সমর্থন করি না। ম্যাচের পর পূর্ব নির্ধারিত বেট পন্ড করার জন্য টেকনিক্যাল দল আমার প্রশংসা করে।

মুসা তার কোচকে জানান, তিনি যদি মুসাকে মাঠে নামান তাহলে বেটের নির্ধারিত স্কোর সে পন্ড করে দেবে। যেমন কথা তেমনই কাজ। মুসার দাবি যে হাওয়ায় ভাসিয়ে দেওয়ার মতো নয়, তা আশান্তি গোল্ডের চতুর্থ গোলটি দেখলে সহজেই বোঝা যায়।

মুসা কুসমি এফএমকে জানান, আমি আমার হোটেলে শুনতে পাই যে আমাদের ইন্টার অ্যালাইজ দলের বিপক্ষে ৫-১ ম্যাচ হারার বেট আগে থেকেই নির্ধারিত করা হয়েছে। আমি সেই বেট পন্ড করার জন্যই আত্মঘাতী গোলগুলি করি, কারণ আমি বেটিং সমর্থন করি না। ম্যাচের পর পূর্ব নির্ধারিত বেট পন্ড করার জন্য টেকনিক্যাল দল আমার প্রশংসা করে।

মুসা তার কোচকে জানান, তিনি যদি মুসাকে মাঠে নামান তাহলে বেটের নির্ধারিত স্কোর সে পন্ড করে দেবে। যেমন কথা তেমনই কাজ। মুসার দাবি যে হাওয়ায় ভাসিয়ে দেওয়ার মতো নয়, তা আশান্তি গোল্ডের চতুর্থ গোলটি দেখলে সহজেই বোঝা যায়।

এই ঘটনার পরে ঘানা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের (জিএফএ) পক্ষ থেকে জানানো হয় তারা পুরো বিষয়টির তদন্ত করছে। এক বিবৃতিতে জিএফএ বলে, ‘ঘানা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন তার সকল সদস্য এবং জনগণের উদ্দেশ্যে জানাতে চায় যে, অ্যাসোসিয়েশন ম্যাচউইক ৩৪-এ আশান্তি গোল্ড ও ইন্টার অ্যালাইজের মধ্যে লেন ক্লে স্টেডিয়ামে, শনিবার, ১৭ জুলাইয়ে খেলা ম্যাচের তদন্ত শুরু করেছে।’ এই ঘটনা আবারও একবার আফ্রিকান ফুটবলের অরাজকতাকে চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল।

ডি-এফবি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়