কোরবানি পশুর উচ্ছিষ্টাংশ পরিবেশ সম্মতভাবে অপসারণের জন্য আহবান

আগের সংবাদ

দেশে গণমাধ্যমের বিকাশ উন্নয়নশীল দেশের জন্য উদাহরণ: তথ্যমন্ত্রী

পরের সংবাদ

চট্টগ্রাম বন্দরে কন্টেইনার সংকট নেই দাবি নৌ সচিবের

প্রকাশিত: জুলাই ৭, ২০২১ , ৬:২১ অপরাহ্ণ আপডেট: জুলাই ৭, ২০২১ , ৬:২১ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রাম বন্দরে কোনো কন্টেইনার সংকট নেই বলে জানিয়েছেন নৌ সচিব মোহাম্মদ মেজবাহ্ উদ্দিন চৌধুরী। এ কারণে জাহাজে পণ্য আমদানি-রপ্তানি ব্যহত হওয়ারও কোনো আশঙ্কা নেই। আজ বুধবার (৭ জুলাই) নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষ থেকে ‘চট্টগ্রাম বন্দরে রপ্তানীপণ্য জাহাজিকরণ সংক্রান্ত’ এক ভার্চুয়াল সভা শেষে তিনি এসব তথ্য জানান।

নৌসচিব জানান, গত ১৫ দিনে বাংলাদেশ থেকে ২৬টি জাহাজ ছেড়ে গেছে। সেগুলোর ক্যাপাসিটি ছিল ৩৮ হাজার টিইইউএস (বিশ ফুটের কন্টেইনার)। কিন্তু জাহাজগুলো পণ্য পরিবহন করেছে ২৭ হাজার টিইইউএস। অর্থাৎ ১১ হাজার টিইইউএস স্পেস অব্যবহারিত থেকেছে। চট্টগ্রাম বন্দরে এখনো প্রায় ৪০ হাজার টিইইউএস খালি কন্টেইনার রয়েছে।

তিনি জানান, পণ্য ও কন্টেইনার হ্যান্ডলিংয়ের ক্ষেত্রে চট্টগ্রাম বন্দর ২৪ ঘন্টা চালু রেখে সেবা দিয়ে যাচ্ছে। কোভিড-১৯ সংক্রমনজনিত লকডাউনের সময়েও চট্টগ্রাম বন্দর ২৪ ঘন্টা চালু রয়েছে।

সভায় জানানো হয়, চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ ২০২০-২০২১ অর্থবছরে ৩০ লাখ ৯৭ হাজার ২৩৬ টিইইউএস কন্টেইনার, ১১ লাখ ২৯ হাজার ৩৭৩ মেট্রিক টন কার্গো এবং ৪ হাজার ৬২টি জাহাজ হ্যান্ডলিং করেছে। বন্দরে ছোট খাটো যেসব সমস্যা আছে, সেগুলো নিয়ে কর্তৃপক্ষ কাজ করছে বলে জানানো হয়।

সভায় বাংলাদেশ থেকে বোঝাই কন্টেইনার দ্রুত রপ্তানির জন্য কয়েকটি প্রস্তাব পেশ করা হয়। এগুলো হচ্ছে, শিপিং এজেন্ট ও মেইনলাইন অপারেটরের (এমএলও) মধ্যে ‘কমন ক্যারিয়ার এগ্রিমেন্ট’ করা; ডাইরেক্ট কলিং অব শিপ টু ফাইনাল ডেস্টিনেশন; এমএলওর সঙ্গে কন্টেইনার সরাসরি ইন্টারচেঞ্জ করা, ফ্রেইট ফরওয়ার্ড অফডকগুলোকে দেরিতে কার্গো লোডিং প্লান না দেয়া করা প্রভৃতি।

ভার্চুয়াল বৈঠকে কাস্টমসের সদস্য (পলিসি) সৈয়দ গোলাম কিবরিয়া, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. শফিকুজ্জামান, চট্টগ্রাম বন্দরের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান, মোংলা বন্দরের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা, বিজিএমইএ’র প্রেসিডেন্ট ফারুক হাসান, বিকেএমইএর ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. হাতেমসহ এফবিসিসিআই, বাংলাদেশ শিপিং এজেন্টস্ এসোসিয়েশন, বাংলাদেশ কন্টেইনার শিপিং এসোসিয়েশন, বাফা এবং বিকডার প্রতিনিধিরা অংশ নেন। নৌপরিবহন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কমডোর আবু জাফর মো. জালালউদ্দিন এবং বাংলাদেশ শিপিং কর্পোরেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কমডোর সাব্বির মাহমুদ ভার্চুয়ালি উপস্থিত ছিলেন।

রি-জেএম/ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়