বর্ষা এলে প্রাণ ফিরে পায় ব্যাঙ

আগের সংবাদ

অকারণে ঘর থেকে বের হলেই গ্রেপ্তারসহ মামলা: ডিএমপি কমিশনার

পরের সংবাদ

স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা থাকবে শিল্প-কারখানা

প্রকাশিত: জুন ৩০, ২০২১ , ১২:৪৫ অপরাহ্ণ আপডেট: জুন ৩০, ২০২১ , ১২:৪৭ অপরাহ্ণ

করোনার নিয়ন্ত্রণে একসপ্তাহের জন্য মানুষকে ঘরে ঢুকিয়ে রাখতে চান সরকার। তাই আগামীকাল বৃহস্পতিবার ৬টা থেকে সারাদেশে ৭দিনের জন্য জনসাধারণ ও যানবাহন চলাচল এবং বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান পরিচালনার বিষয়ে কঠোর লকডাউন আরোপ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সরকার। তবে এর মধ্যেও স্বাস্থ্যবিধি মেনে নিজস্ব ব্যবস্থায় চালু থাকবে শিল্প-কারখানা।

বুধবার (৩০ জুন) বিধিনিষেধ আরোপ করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানা গেছে। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা প্রজ্ঞাপনে সরকারি-বেসরকারি সব অফিস, যানবাহন ও দোকানপাট বন্ধ রাখার কথা বলা হয়েছে। এই সময়ে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বের হলে কঠোর শাস্তির মুখে পড়তে হবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। এ সময় মাস্ক পরিধানসহ সব স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য অনুরোধ জানানো হয় তথ্য বিবরণীতে।

লকডাউনে শিল্প-কারখানা খোলা বা বন্ধ রাখার প্রশ্ন আসলেই সবাই পোশাক কারখানার কথা বলে। তার সংগত কারণও আছে। দেশের প্রায় ৮৫ শতাংশ রপ্তানি আয় আসে এই খাত থেকে। পোশাক খাতের রপ্তানি আয়ের প্রায় ৭০ শতাংশ যোগান দেয় বস্ত্র খাত যেখানে তুলা থেকে সুতা তৈরি হয়, সুতা থেকে কাপড়। আর সেই কাপড় কেটে সেলাই করে পোশাক খাত রপ্তানি করে। বস্ত্র খাতের পাশাপাশি গার্মেন্টস এক্সেসরিজ খাত ও সম্পৃক্ত। তাই দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে শিল্প কারখানা খোলা রাখতে চায় সরকার।

ডি-এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়