রেলমন্ত্রীর স্ত্রী দিনাজপুরের মেয়ে মনি

আগের সংবাদ

পাচারকারী নারী গ্রেপ্তার: শারিরিক সম্পর্কে বাধ্য করা হয় ভিকটিমকে

পরের সংবাদ

মর্যাদার লড়াইয়ে জিতল মোহামেডান

প্রকাশিত: জুন ১১, ২০২১ , ৬:১০ অপরাহ্ণ আপডেট: জুন ১১, ২০২১ , ৬:১৮ অপরাহ্ণ

দেশের ঐতিহ্যবাহী দুদল আবাহনী-মোহামেডান খেলা মানেই টান টান উত্তেজনায় ঠাসা এক ম্যাচ। যার পড়তে পড়তে হয়ে থাকে স্নায়ুক্ষয় ও উত্তপ্ত বাক্য বিনিময়। আবাহনী-মোহামেডান ম্যাচে হবে না কোন উত্তেজনা, এটি কি হতে পারে। সেটি হোক ক্রিকেট বা ফুটবল, উত্তেজনা ছড়াবেই।

শুক্রবার (১১ জুন) ঢাকা প্রিমিয়ার ক্রিকেট লিগে খেলতে নামে দুই চির প্রতিদ্বন্ধি আবাহনী আর মোহামেডান। সেই ম্যাচটিতে ছড়িয়েছে বেশ উত্তেজনা। উত্তেজনার কেন্দ্র বিন্দুতে ছিলেন মোহামেডান অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তিনি ম্যাচের আম্পায়ারের সঙ্গে বাক-বিতন্ডতায় জড়িয়েছেন। মুশফিকুর রহিমকে আম্পায়ার এলবিডব্লিউ আউট না দেয়ার রাগের চোটে স্ট্যাম্পে লাথি মেরেছেন। আবার বৃষ্টি আসার আগেই খেলা বন্ধ করায় স্ট্যাম্প তুলে ছুড়ে ফেলেছেন। এমন ঘটনাবহুল ম্যাচে জয় পেয়েছে সাকিবের মোহামেডানই।

ম্যাচটিতে প্রথমে ব্যাট করে পুরো ২০ ওভার খেলে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৪৫ রান করে। ম্যাচে মোহামেডানের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৭ রান করে অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ অপরাজিত ৩০ রান করেন মাহমুদুল হাসান। আবাহনীর হয়ে সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট তুলে নেন স্বাধীন।

ম্যাচে বৃষ্টি হানা দেয়ায় ৯ ওভারে আবাহনীর সামনে টার্গেট দাঁড় হয় ৭৬। কিন্তু ৯ ওভার খেলে ৬ উইকেট হারিয়ে মাত্র ৪৪ রান করতে সমর্থ হয় আবাহনী। ফলে বৃষ্টি আইনে ৩১ রানে জয় পায় মোহামেডান। আবাহনীর ইনিংসের ৫ ওভার ৫ বল পরে বৃষ্টির বাধায় খেলা বন্ধ হয়ে যায়। ঘণ্টা খানেক বন্ধ থাকার পর পুনরায় খেলা শুরু হয়। কিন্তু কমিয়ে দেয়া হয় ওভার। বৃষ্টির আগে আবাহনীর সংগ্রহ ছিল ৩ উইকেট হারিয়ে ৩১ রান। বৃষ্টির পর খেলা শুরুর পর ১৯ বলে মুশফিকদের করতে হতো ৪৫ রান।

চিরপ্রতিদ্বন্ধী আবাহনীর বিপক্ষে জয় পাওয়ার মাধ্যমে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে টানা তিন ম্যাচে হারার পর প্রথম জয়ের স্বাদ পেয়েছে মোহামেডান। আবাহনীর হয়ে সর্বোচ্চ ১৮ রান করেছেন মুশফিকই। যার আউট নিয়ে এতো ঝামেলা সেই মুশফিক ছিলেন অপরাজিতই। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১৫ রান করেছেন নাজমুল শান্ত। আবাহনীকে ধসিয়ে দেন অলরাউন্ডার শুভাগত হোম। তিনি মাত্র ১৭ রান দিয়ে তিনটি উইকেট তুলে নেন। আর এ কারণে ম্যাচ সেরার পুরষ্কার যায় তার হাতেই।

আর-ই/এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়