করোনায় কাবু ঈদ অর্থনীতি

আগের সংবাদ

যুক্তরাষ্ট্রে ১২ বছর বয়সীরাও ফাইজারের টিকা নিতে পারবে

পরের সংবাদ

গঙ্গায় সারি সারি লাশ

প্রকাশিত: মে ১২, ২০২১ , ১১:১৬ পূর্বাহ্ণ আপডেট: মে ১২, ২০২১ , ১১:১৬ পূর্বাহ্ণ

বিহারের বক্সারের পর উত্তর প্রদেশের গাজিপুরে গঙ্গার জলে ভেসে আসছে সারি সারি অজ্ঞাত লাশ। কোভিড রোগীর মৃতদেহ নয় তো? খবর ছড়িয়ে পড়তেই এই আতঙ্ক ঘুরপাক খাচ্ছে মানুষের মনে। স্তম্ভিত হয়েছেন অনেকে। ভাইরাল হয়েছে খবর। আর এবার সেই ঘটনায় ১৪ দিনের মধ্যে রিপোর্ট তলব করল ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার। দেশটির কেন্দ্রীয় জলশক্তি মন্ত্রী গজেন্দ্র সিং শেখাওয়াত জানান, জাতীয় নির্মল গঙ্গা মিশন (এনএমসিজি) ও স্থানীয় জেলা প্রশাসন মিলে ঐ দেহগুলি কোথা থেকে এল, কারা এভাবে তাদের সৎকার করল তা খতিয়ে দেখবে। খবর জি টুয়েন্টিফোরের।

জেলা প্রশাসন ও কালেক্টরদের নিয়ে গঠিত গঙ্গা কমিটিকে একটি চিঠিতে ডিরেক্টর রাজীব রঞ্জন মিশ্র জানিয়েছেন, গঙ্গায় ভেসে আসা ঐ মৃতদেহ কোভিড রোগীর বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। একই সঙ্গে জানানো হয়, ‘প্রত্যেক স্থানীয় প্রশাসন যেন সীমানায় নদী বরাবর কঠোর নজরদারি চালায়। গঙ্গা বা অন্য কোনো শাখা নদীতে মৃতদেহ ভাসানো হচ্ছে কিনা তা খতিয়ে দেখতে হবে। গঙ্গা ও তার আশেপাশে বসতির জন্য তা মারাত্মক ক্ষতিকারক হতে পারে। শুধু পানি দূষণই নয়, গোষ্ঠী সংক্রমণ দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কাও রয়েছে। আগামী ১৪ দিনের মধ্যে এ্যাকশন টেকেন রিপোর্ট (এটিআর) চেয়ে পাঠিয়েছে (এনএমসিজি)।

প্রসঙ্গত, সোমবার বিহারের বক্সারে গঙ্গায় এভাবেই কমপক্ষে একশো লাশ ভাসতে দেখা গিয়েছিল। আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। বক্সারের ঘটনা নিয়ে সেখানকার এসডিও -র দাবি, ‘গঙ্গায় ১০-১২টি লাশ ভাসতে দেখা গেছে। মনে হচ্ছে ওইসব লাশ কমপক্ষে ৭ দিনের পুরনো। ‘উত্তর প্রদেশের গাজিপুরেও গঙ্গায় ভাসতে দেখা যায় শয়ে শয়ে মৃতদেহ। এলাকার লোকজনের অনুমান, ওইসব মৃতদেহ করোনা রোগীদের। তদন্ত শুরু করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়