পুঁজিবাজারে লকডাউন ভীতি কেটে মূলধন ফিরেছে ৩৫০০ কোটি টাকা

আগের সংবাদ

প্রথমবারের মতো একসঙ্গে দেব, শ্রাবন্তী ও পাওলি

পরের সংবাদ

লকডাউনে পুলিশের জেরার মুখে সড়কে নামাজ আদায়

প্রকাশিত: এপ্রিল ১৭, ২০২১ , ১২:৩৫ অপরাহ্ণ আপডেট: এপ্রিল ১৭, ২০২১ , ১:৩২ অপরাহ্ণ

লকডাউনে বাইরে বের হওয়ায় পুলিশের জেরার মুখে কোনে জবাব না দিয়ে রাস্তায় দাঁড়িয়ে নামাজ আদায় করে নীরব প্রতিবাদ জানিয়েছেন এক ব্যক্তি। শনিবার (১৭ এপ্রিল) বেলা ১১টার দিকে রাজশাহী নগরীর বর্নালি মোড় এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। তাৎক্ষণিকভাবে ওই ব্যক্তির পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রিকশাযোগে বর্নালি মোড় দিয়ে গন্তব্যে যাচ্ছিলেন এক ব্যক্তি। এ সময় বর্নালী মোড়ের আমবাগান ক্লাবের বিপরীতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। জানতে চান, লকডাউনে তিনি কেন বের হয়েছেন? তবে তিনি কোনে জবাব দেন নি। এক পর্যায়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাকে সামনে যেতে না দিয়ে ফিরিয়ে দিচ্ছিলেন। এমতাবস্থায় ওই ব্যক্তি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়েন এবং এক পর্যায়ে প্রতিবাদস্বরূপ রাস্তার ধারে নামাজ পড়তে শুরু করেন।

স্থানীয় একটি সূত্র জানায়, পুলিশ সদস্যরা বর্নালি মোড়ে দায়িত্ব পালন করা অবস্থায় সড়কে চলাচলকারী রিকশাচালকদের থামিয়ে বেশ কয়েকটি রিকশার চাকার হাওয়া ছেড়ে দেন। শনিবার ওই রিকশার চাকা থেকেও হাওয়া বের করে দেন ট্রাফিক পুলিশের এক সদস্য। ফলে রিকশাচালক রাগান্বিত হন এবং রিকশার যাত্রী ক্ষুব্ধ হয়ে প্রতিবাদস্বরূপ সড়কেই নামাজ আদায় করেন।

পুলিশ জানায়, লকডাউনে সরকারী নির্দেশনা মোতাবেক দায়িত্ব পালন করছেন তারা। রিকশায় বাইরে বের হওয়ার কারণ জানতে চাওয়া হয় এবং মুভমেন্ট পাশ দেখতে চাইলে ওই ব্যক্তি তর্কে জড়িয়ে পড়েন। এক পর্যায়ে তিনি রাস্তায় নামাজ আদায় করতে শুরু করেন। এ সময় অতিরিক্ত পুলিশ ডাকা হয়। তবে নামাজ শেষ করে বাড়ি ফিরে যান তিনি।

এ বিষয়ে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের (আরএমপি) উপ-কমিশনার (ট্রাফিক) অনির্বাণ চাকমার সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিভ না করায় তার বক্তব্য পাওয়া যায় নি। তবে আরএমপির ট্রাফিক ইন্সপেক্টর মোফাখখারুল ইসলাম ভোরের কাগজকে বলেন, কাউকে তো গ্রেপ্তার করা হচ্ছে না। করোনা মোকাবেলায় সবাইকে শুধু ঘরে থাকার আহবান জানানো হয়েছে। লকডাউন পুরোপুরি কার্যকরের লক্ষ্যেই রিকশাচালক ও জনসাধারণকে বাইরে বের হতে নিরুৎসাহিত করার অংশ হিসেবেই পুলিশ মাঠে কাজ করছে।

ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়