তানভির জাদুতে ইনিংস ব্যবধানে জিতল বাংলাদেশ

আগের সংবাদ

পিচিচির দৌড়ে সবার উপরে মেসি

পরের সংবাদ

চলন্ত বাসে কলেজছাত্রীকে যৌন হয়রানি, আটক ২

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২১ , ৯:৩৯ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২১ , ৯:৩৯ অপরাহ্ণ

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় চলন্ত বাসে এক কলেজছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে ওই বাসের সুপারভাইজার ও চালকের সহকারীকে আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছেন স্থানীয় জনতা। শনিবার ঘটে যাওয়া এ নিপীড়নের ঘটনায় রবিবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) সকালে তাদের আটক করা হয়।

আটকরা হলেন- রতন সূত্রধর (৪৬)। তিনি বাসের সুপারভাইজার। মুন্সীগঞ্জের হামরা গ্রামে বাড়ি। তার বাবার নাম মাখন সূত্রধর। ইব্রাহিম খলিল (৩০) বাসের হেলপার। তার বাড়ি নরসিংদীর ইছাক আলী গ্রামে। বাবার নাম রফিজ মিয়া।

জানা গেছে, গত শনিবার সকালে হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার পৌর এলাকার তিমিরপুর পয়েন্ট থেকে হবিগঞ্জ শহরে যাওয়ার জন্য লাকি পরিবহনের একটি বাসে উঠেন এক কলেজছাত্রী। বাসে উঠে যাত্রীর আসনে বসার পর থেকেই বাসটির সুপারভাইজার ও হেলপার তাকে যৌন হয়রানি করা শুরু করেন। বাসে থাকা অন্য যাত্রীরা ঘুমিয়ে থাকার সুযোগে তাদের হয়রানির মাত্রা আরও বেড়ে যায়।

ওই কলেজযাত্রী হবিগঞ্জ শহরে নামতে চাইলে সুপারভাইজার ও হেলপার তাকে গাড়ি থেকে নামতে বাধা দেয়। একপর্যায়ে কলেজছাত্রী চিৎকার দিলে তাকে বাস থেকে নামিয়ে দেয় হেলপার। ভুক্তভোগী কলেজছাত্রী বাড়িতে ফিরে ঘটনার বর্ণনা দেন তার আত্মীয়-স্বজনের কাছে।

এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর রোববার সকালে লাকি পরিবহনের ওই বাসটি (ঢাকা-মেট্রা-ব ১৫-৩৪৬৪) আটক করেন স্থানীয় জনতা। উত্তেজিত জনতা বাসটির সুপারভাইজার ও হেলপারকে মারধর করলে তারা কলেজছাত্রীকে যৌন হয়রানির দায় স্বীকার করে। পরে খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার এসআই শাহীন ও সম্রাটসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে বাসসহ সুপারভাইজার ও হেলপারকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

দুইজনকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ডালিম আহমদ।

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।