সিলেটে সংর্ঘষ: মেয়রের দিকে বন্দুক নিয়ে তেড়ে আসে পরিবহন শ্রমিক

আগের সংবাদ

খালেদা জিয়া ও গয়েশ্বরের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

পরের সংবাদ

ডিসি-এসপির প্রত্যাহার দাবি, ফের হরতালের ডাক কাদের মির্জার

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২১ , ৫:১৪ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২১ , ৬:৫৭ অপরাহ্ণ

এবার নোয়াখালীর ডিসি-এসপিকে প্রত্যাহারের দাবিতে হরতাল ডেকেছেন বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা। এর আগে, নোয়াখালী জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি), ওসি-তদন্তকে প্রত্যাহার এবং উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ফখরুল ইসলাম সবুজকে গ্রেপ্তারের দাবিতে মঙ্গলবার রাত ৯টা থেকে বুধবার সকাল সাড়ে ৯টা পর্যন্ত কোম্পানীগঞ্জ থানার সামনে নিজের কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন তিনি। সে সময় তারা থানার সামনে রাস্তায় গাছের গুঁড়ি ফেলে চলাচল বন্ধ করে দেয়। এতে থানায় যাতায়াত বন্ধ হয়ে যায়। আর বসুরহাট বাজারের সব প্রবেশপথও অবরোধ করে তারা।

অবস্থান ধর্মঘটে আবদুল কাদের মির্জা বলেন, আমাদের দাবি মানা না হলে বৃহস্পতিবার ভোর ৬টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত কোম্পানীগঞ্জে হরতাল এবং শুক্রবার থেকে দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত কোম্পানীগঞ্জ থানার সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করা হবে।

পরে বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে বসুরহাট পৌরসভার মেয়রের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই কর্মসূচির ঘোষণা দেন মেয়র আবদুল কাদের মির্জা।

জানা যায় মঙ্গলবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যা ৭টার দিকে কোম্পানীগঞ্জ চরকাঁকড়া ইউনিয়নের আওয়ামী লীগ নেতা ফখরুল ইসলাম সবুজ টেকেরবাজারে তার অনুসারীদের নিয়ে আবদুল কাদের মির্জার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল করেন। খবর পেয়ে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ফখরুল ইসলাম সবুজকে আটক করে। এ সময় সমর্থকেরা পুলিশের কাছ থেকে ফখরুলকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এ খবর পেয়ে দলীয় নেতাকর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে আবদুল কাদের মির্জা নিজেই থানার ফটক অবরোধ করে অবস্থান নেন।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি খিজির হায়াত জানান, থানার সামনের অবস্থান ধর্মঘট প্রত্যাহার করে বৃহস্পতিবার সকাল ছয়টা থেকে দুপুর ২ টা পর্যন্ত আধাবেলা হরতালের ডাক দিয়েছেন আব্দুল কাদের মির্জা।

নোয়াখালী পুলিশ সুপার (এসপি) মো. আলমগীর হোসেন জানান, বিষয়টি সম্পূর্ণ রাজনৈতিক ইস্যু। তাই আপাতত পুলিশ এ বিষয়ে কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করতে চাচ্ছে না। তবে, আইন শৃঙ্খলার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার বিষয়ে পুলিশ তৎপর রয়েছে।

উল্লেখ্য, এর আগেও ফেইসবুকে ‘আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সম্পর্কে আপত্তিকর মন্তব্য করায়’ নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম এমপিকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবিতে গত ২৪ জানুয়ারি কোম্পানীগঞ্জে অর্ধবেলা হরতাল ডাক দেন কাদের মির্জা। পরে হরতাল কর্মসূচি প্রত্যাহার করেছে উপজেলা আওয়ামী লীগ। এসময় ওবায়দুল কাদেরের অনুরোধে রোববারের হরতাল প্রত্যাহার করার কথা জানান তিনি।

 

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়