রাজস্ব আহরণে অবদানের স্বীকৃতি পেলেন করদাতারা

আগের সংবাদ

প্রথমদিন সুবিধা করতে পারেনি টাইগাররা

পরের সংবাদ

বাংলাদেশ বিদ্যুতের সুষম বন্টন নিশ্চিত করতে চায়: বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১ , ৫:৫০ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১ , ৫:৫৫ অপরাহ্ণ

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন, আঞ্চলিক সহযোগিতার মাধ্যমে বাংলাদেশ বিদ্যুতের সুষম বন্টন নিশ্চিত করতে চায়। এজন্য বাংলাদেশ আঞ্চলিক সহযোগিতাকে অধিক গুরুত্ব দেয়। আঞ্চলিক সহযোগিতা বাড়ানোর জন্য বাংলাদেশ সব ধরনের প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। ক্রস বর্ডার পাওয়ার ট্রেড পরিবেশ সংরক্ষণ করবে এবং আর্থিকভাবেও সাশ্রয়ী হওয়া যাবে।

বৃহস্পতিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) অনলাইনে যুক্তরাষ্ট্রের স্টেট ডিপার্টমেন্টের ব্যুরো অব এনার্জি রিসোর্স ও ডিলরেট-এর যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত ‘ক্রস বর্ডার পাওয়ার ট্রেডিং’ শীর্ষক কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ শুধু আঞ্চলিক নয়, উপ-আঞ্চলিক বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সহযোগিতাকে সব সময় বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে আসছে। এরই আওতায় ভারত থেকে ইতিমধ্যেই ১ হাজার ১৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করতে হচ্ছে। অন্যদিকে নেপাল থেকেও বিদ্যুৎ আনা হবে। এখান থেকে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানির প্রক্রিয়া প্রায় চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। আবার ভুটান থেকেও বাংলাদেশ বিদ্যুৎ আমদানীর চেষ্টা করছে। ভুটান ও নেপালের সঙ্গে বিদ্যুৎ আমদানীর বিষয়ে আমাদের আলোচনা চলছে।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশের পাওয়ার সিস্টেম মাস্টার প্ল্যানেও ক্রস বর্ডার ট্রেডের মাধ্যমে ১৫ ভাগ বিদ্যুৎ কেনার পরিকল্পনা রয়েছে। ২০৪১ সালের মধ্যে ৯ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানির নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। বাংলাদেশ আঞ্চলিক সহযোগিতা বাড়ানোর জন্য প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে এবং আগামীতেও রাখবে।

ভার্চুয়াল এই অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বিদ্যুৎ সচিব মো. হাবিবুর রহমান, যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশ দূতাবাসের উপপ্রধান জুঅ্যান ওয়াগনার ও পাওয়ার সেলের মহাপরিচালক মোহাম্মদ হোসেন সংযুক্ত থেকে বক্তব্য রাখেন।

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়