সমাজ বিনির্মাণে শিষ্টাচারের প্রয়োজনীয়তা

আগের সংবাদ

সেশনজট হতে মুক্তি চাই

পরের সংবাদ

আদালতে ক্ষমা চাইলেন সালমান

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২১ , ১১:০৯ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২১ , ১১:১৩ অপরাহ্ণ

ভারতের যোধপুরে ১৯৯৮ সালের দুটি কৃষ্ণসার হরিণ হত্যা মামলা নিয়ে এখানো আইন-আদালতের ঝামেলা পোহাতে হচ্ছে বলিউড ভাইজান সালমান খানকে। চলতি মাসের ৯ তারিখ ছিলো মামলার শুনানি। সেদিন যোধপুর দায়রা আদালতে ভার্চুয়ালি হাজির হন সালমান। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে শুনানিতে অংশ নিয়ে ২০০৩ সালে ‘ভুলভাবে’ হলফনামা জমা দেওয়ার জন্য আদালতের কাছে ক্ষমা চান তিনি।

আগামীকাল ১১ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) মামলাটির চূড়ান্ত রায় ঘোষণা করা হবে।

সালমান খানের আইনজীবী হাস্তিমাল সরস্বত আদালতকে জানান, ২০০৩ সালের ৮ আগস্ট তাদের দায়ের করা হলফনামাটি ভুল ছিল। অভিনেতা তা স্বীকার করে নিয়েছেন। এজন্য সালমানকে ক্ষমা করা উচিৎ বলেও মনে করেন তিনি।

এর আগে এই মামলায় পাঁচ বছরের সাজা পান সালমান। কিন্তু ২০১৮ সালে যোধপুর দায়রা আদালতে ব্যক্তিগত ৫০ হাজার টাকার বন্ডে জামিন মঞ্জুর হয় তার।

প্রসঙ্গত, যোধপুরের কোঙ্কনি গ্রামে কৃষ্ণসার হরিণকে মারার অভিযোগে চারটি মামলা হয়েছিল সালমান খানের বিরুদ্ধে। ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ চলচ্চিত্রের শুটিংয়ে গিয়ে পরপর দুইদিন আলাদা আলাদা স্থানে ওই দুটি বিলুপ্তপ্রায় বন্যপ্রাণি শিকার করেছিলেন সালমান।

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়