নবীগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে ৫৫ প্রার্থীর মনোনয়ন দাখিল

আগের সংবাদ

আবেদ খানের প্রতি সাংবাদিক নেতাদের আহ্বান

পরের সংবাদ

অনুমোদনহীন দুই ইটভাটা ভেঙে দেয় প্রশাসন

প্রকাশিত: ডিসেম্বর ২০, ২০২০ , ৯:১৭ অপরাহ্ণ আপডেট: ডিসেম্বর ২০, ২০২০ , ৯:২৬ অপরাহ্ণ

যশোরের কেশবপুর উপজেলার দুই ইটভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে অনুমোদন ছাড়াই ভাটা তৈরি ও ইট পোড়ানোর অভিযোগে চিমনিসহ ভাটা গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার সাতবাড়িয়া গ্রামের প্রধান সড়ক সংলগ্ন সুপার ব্রিকস নামে ফারুক হোসেন ও বেগমপুর বাজার সংলগ্ন রিপন ব্রিকস নামে আবু বকর সিদ্দিক অনুমোদন ছাড়াই লোকালয় সংলগ্ন কৃষি জমির উপর ভাটা নির্মাণ করে ইট পুড়িয়ে আসছিল। এ ভাটা নির্মাণের প্রতিবাদে এলাকাবাসী দীর্ঘদিন ধরে মানববন্ধনসহ ভাটা বন্ধের দাবিতে হাইকোটে ও বেলায় অভিযোগ করেছিল। সর্বশেষ ৩ নভেম্বর হাইকোট থেকে সুপার ব্রিকসকে অবৈধ ঘোষণা করে।

এরই প্রেক্ষিতে রবিবার (২০ ডিসেম্বর) সকালে পরিবেশ অধিদপ্তরের ঢাকা থেকে পরিচালিত যশোর জেলা কার্যলয়ের সযোগিতায় ইট প্রন্তুত ভাটা নিয়ন্ত্রণ আইনে পরিবেশ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক রোজিনা আক্তারের নের্ত্বতে কেশবপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইরুফা সুলতানা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান চালিয়ে ফায়ার সার্ভিসের মাধ্যমে ভাটার আগুন নিভিয়ে বুলডোজর দিয়ে ওই ভাটা দুইটির চিপনি গুড়িয়ে দেয়। এরপর ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ওই ভাটা দুইটির সকল কায্যক্রম বন্ধ ঘোষণা করেন। এ সময় কেশবপুর থানা পুলিশের একটি টিম উপস্থিত ছিলেন।

এ বিষয়ে কেশবপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ইরুফা সুলতানা জানান, পর্যায়ক্রমে উপজেলার অনুমোদনহীন ভাটামালিকের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান অব্যাহত থাকবে

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়