প্রত্যাবাসনে বিশ্বের জোরালো ভূমিকা দরকার

আগের সংবাদ

পুলিশে চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণা, গ্রেপ্তার ১

পরের সংবাদ

ফ্রি-ফায়ার গেমসে আসক্ত হচ্ছে শিক্ষার্থীরা

প্রকাশিত: নভেম্বর ২০, ২০২০ , ৭:২৫ অপরাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ২০, ২০২০ , ১০:৫৯ অপরাহ্ণ

করোনা ভাইরাস সংক্রমণের কারণে দীর্ঘদিন ধরে স্কুল কলেজ বন্ধ রয়েছে। ফলে বেশির ভাগ সময় শিক্ষার্থীরা ফেসবুকে শেয়ারের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরনের গেমস খেলে সময় কাটাচ্ছে। অন্য দিকে অনলাইনে স্কুল কলেজের ভিডিও ক্লাস করার প্রয়োজনে অভিভাবকরা কিনে দিচ্ছে টাচ ফোন। শিক্ষার্থীরা ক্লাসের চেয়ে সময় দিচ্ছে মোবাইল ফোনের ভিডিও গেমসে। সরেজমিনে গিয়ে জানা গেছে, অভিভাবকরা বলছেন, ভিডিও গেমসে আসক্ত ছেলেদের ভবিষ্যৎ কী হবে?।

উপজেলায় একাধিক সচেতন ব্যক্তি জানান, উঠতি বয়সী শিক্ষার্থী ও তরুণরা নেশার মতো মোবাইল গেমসের আসক্ত হয়ে পড়ছে। যে সময় তাদের ব্যস্ত থাকার কথা পড়ালেখা ও খেলার মাঠে ক্রীড়া চর্চার মধ্যে সেখানে তারা মোবাইল গেমসে আসক্ত হচ্ছে।

ফ্রি-ফায়ার গেমসে অনুরাগী জুয়েল জানায়, বন্ধুদের দেখাদেখি খেলতে গিয়ে এখন সে আসক্ত হয়ে গেছে। এখন খেলা ছেড়ে দেওয়া তার কাছে অসম্ভব বলে মনে হয়।

কলেজ শিক্ষার্থী হেলাল জানায়, ফ্রি-ফায়ার গেমস তার নেশার মতো। মাঝে মধ্যে নেট সমস্যায় এ গেমস খেলতে না পারলে মুঠোফোন ভেঙে ফেলার ইচ্ছা হয় ।

একজন শিক্ষার্থীর অভিভাবক রফিকুল ইসলাম সাজু বলেন, এই গেমস গুলো বাংলাদেশ থেকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হোক। পড়াশোনা তেমন না থাকায় গেমসে সারাক্ষণ ছেলেরা ব্যস্ত থাকে।

রৌমারী মহিলা ডিগ্রী কলেজের প্রভাষক নাজমুল আলম বলেন, যে গেমসে শিক্ষার্থীরা নেশার মতো আসক্ত হচ্ছে এই গেমস বন্ধ করে দেওয়া হোক।

রৌমারী সিজি জামান সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবু হোরায়রা জানায়, দীর্ঘদিন স্কুল কলেজ বন্ধ থাকায় গেমসে আসক্ত হচ্ছে শিক্ষার্থীরা। এই বদঅভ্যাসে মারাত্মক ক্ষতি হবে। সব শিক্ষার্থীদের এ গেমস থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানান তিনি।

রৌমারী সরকারি ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ ছামিউল ইসলাম জীবন বলেন, বর্তমানে এই ফ্রি-ফায়ার গেমসে শিক্ষার্থীরা সারাক্ষণ ব্যস্ত থাকে। শিক্ষর্থীদের জন এটা মারাত্মক ক্ষতি করছে। তবে পরিবারের অভিভাবকদের উচিত এ গেমস থেকে শিক্ষার্থীদের দূরে রাখা।

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়
close