মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটি দিয়ে গোপনে মাদ্রাসায় নিয়োগ

আগের সংবাদ

মদনে গুচ্ছ গ্রামে ঘর বিক্রির হিড়িক

পরের সংবাদ

স্বামীর পরকিয়ায় বলি স্ত্রী

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৮, ২০২০ , ৮:৫৪ অপরাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ১৮, ২০২০ , ৮:৫৮ অপরাহ্ণ

স্বামীর অনৈতিক সর্ম্পকের প্রতিবাদ ও পরকিয়া প্রেমের বাধা হয়ে দাঁড়ানোয় প্রাণ গেল ১০ মাস বয়সের শিশু সন্তানের মা এ্যানি বেগমের (২৫)। খুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলার রঘুনাথপুর ইউনিযনের দেড়ূলি গ্রামে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় থানায় অভিযোগের ভিত্তিতে বুধবার পুলিশ লাশ ময়না তদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। তবে এটি পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড নাকি আত্মহত্যা এ নিয়ে নানা প্রশ্ন দেখা দিয়েছে জনমনে।

গৃহবধু এ্যানির পিতা উপজেলার রুদাঘরা গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক সরদার জানান, তার মেয়ে এ্যানিকে দেড়ুলি গ্রামের শহিদ শেখের ছেলে লিটন শেখের সাথে পারিবারিকভাবে বিয়ে দেয়া হয়। তাদের ১০ মাস বয়সের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। জামাই লিটন শেখ কোমরাইল গ্রামের মৃত সবুর দাইয়ের মেয়ে মুক্তা খাতুনের সাথে পরকিয়ায় জড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে এ্যানি ও লিটনের মাঝে মধ্যে ঝগড়া বিবাদ হত। এরই জের ধরে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ্যানিকে গলায় রশি দিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করার পর তার লাশ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রেখে আত্মহত্যা বলে প্রচার করা হয়। তিনি আরো বলেন, এ ঘটনায় লিটন শেখ, প্রেমিকা মুক্তা খাতুনসহ ৬ জনের নামে থানায় অভিযোগ দিয়েছি। এদিকে এ ঘটনার পর লিটন শেখ, মুক্তা খাতুন, শহিদ শেখ বাড়ি থেকে পালিয়েছে বলে জানা গেছে।

ডুমুরিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আমিনুল ইসলাম বিপ্লব বলেন, সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘরের দরজা ভেঙ্গে এ্যানীর লাশ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করে। এ ঘটনায় এ্যানির পিতা থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছে। অপমৃত্যু মামলা হিসেবে রেরকর্ড করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রির্পোট পেলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হবে।

পিআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়
close