সিনার পর বিয়ে করছেন নিকি বেলা

আগের সংবাদ

গোল করেই ইতিহাস গড়লেন ফাতি

পরের সংবাদ

রিয়াদ নাকি শান্ত, কে উঁচিয়ে ধরেবেন ট্রফি

প্রকাশিত: অক্টোবর ২৪, ২০২০ , ১০:০০ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ২৪, ২০২০ , ১০:৫৮ অপরাহ্ণ

বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপ টুর্নামেন্টের ফাইনাল আগামীকাল। হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে দুপুর দেড়টায় মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ একাদশের বিপক্ষে মাঠে নামবে নাজমুল হোসেন শান্ত একাদশ। ফাইনাল ম্যাচটি সরাসরি বাংলাদেশ টেলিভিশেনে দেখা যাবে তা আগেই জেনেছেন ক্রীড়াপ্রেমীরা। এর আগে গতকাল(শুক্রবার) বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপের ফাইনাল ম্যাচটি হবার কথা ছিল। কিন্তু বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট গভীর নিম্নচাপের কারণে দুদিন পিছিয়ে যায় ম্যাচটি। তবে যাই হোক ফাইনালের মহারণে শিরোপা জিততে অভিজ্ঞ রিয়াদ বাহিনীর বিপক্ষে তরুণ শান্তর দল হাড্ডাহাড্ডি লড়াই করবে তা নতুন করে বলার কিছু নেই। আগামীকাল কে ট্রফি উঁচিয়ে ধরে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার শেষ হাসি হাসবে এমন জল্পনা-কল্পনায় ডুবে আছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা। এছাড়া আরো একটি কৌতূহলী প্রশ্ন ভক্তদের মনে উঁকিঝুঁকি দিচ্ছে। তা হলো বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপের আসর সেরা পারফরমার হবেন কে তা জানতে মুখিয়ে আছেন সবাই। তবে আসর সেরা পারফরমার হওয়ার লড়াইয়ে এখন আছেন ৪ জন- মুশফিকুর রহিম, আফিফ হোসেন ধ্রুব , পেস বোলিং অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ও ডান হাতি পেস বোলার রুবেল হোসেন। এছাড়া বাঁ-হাতি পেসার মোস্তাফিজও আছেন তাদের বেশ কাছে।

কিন্তু টুর্নামেন্ট সেরা পারফরমার হওয়ার দৌড়ে সবার আগে আছেন মুশফিক। তিনি বেশ দাপুটে ব্যাটিং নৈপুণ্য প্রদর্শন করে নামের পাশে জমা করেছেন ২০৭ রান। যা টুর্নামেন্টে আর কেউ করতে পারেননি। নাজমুল একাদশের প্রধান ব্যাটিং স্তম্ভ মুশফিক শুধু ১ ম্যাচে আউট হয়েছেন ১ রানে। কিন্তু পরের ৩ ম্যাচে মিস্টার ডিপেন্ডেবলের ব্যাট জ্বলে উঠেছে। ফিফটি পেরিয়েছেন টানা ৩ ম্যাচে। এখন পর্যন্ত আসরের একমাত্র সেঞ্চুরিয়ানও মুশফিক। তার মোটামুটি কাছেই আছেন আফিফ হোসেন। এ বাঁ-হাতি মিডলঅর্ডারের রান ১৫৭।

এদিকে এখন পর্যন্ত আসরের সর্বাধিক উইকেট শিকারি সাইফউদ্দিন। তামিম ইকবাল বাহিনীর এ পেসার ১ ম্যাচে ৫ উইকেট শিকার করেছেন। তার সেরা বোলিং ২৬ রানে ৫ উইকেট। ৪ ম্যাচে সাইফউদ্দিনের ঝুলিতে জমা পড়েছে সর্বাধিক ১২ উইকেট। কিন্তু তাকে টপকে সর্বাধিক উইকেট শিকারি হওয়ার সম্ভাবনা আছে পেসার রুবেল হোসেনের। রিয়াদ বাহিনীর এ পেসার এখন পর্যন্ত দখল করেছেন ১০ উইকেট। সাইফ আর রুবেলের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছিলেন আরেক পেসার মোস্তাফিজুর রহমান। এ বাঁ-হাতি পেসার ৮ উইকেট। কিন্তু ফাইনালে নেই সাইফউদ্দিন ও মোস্তাফিজ। তাদের অনুপস্থিতিতে সেরা পারফরমার হবার পুরোপুরি সুযোগ থাকছে মুশফিক, আফিফ ও পেসার রুবেলের সামনে। এখন দেখা যাক, আসর সেরা পারফরমারের ২ লাখ টাকার পুরস্কার কে নেবে।

এছাড়া বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপ টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই বেশ দাপটে খেলেছে শান্ত একাদশ। প্রথম ম্যাচে রিয়াদ একাদশ সব উইকেট খুইয়ে ১৯৬ রান করে। জবাবে ২ তরুণ তৌহিদ হৃদয় আর ইরফান শুক্কুরের জোড়া হাফসেঞ্চুরিতে ৪ উইকেটের জয়ে আসর শুরু করেছিল শান্ত বাহিনী। এরপর রবিন লিগের ফিরতি পর্বের লড়াইয়ে নিজদের চতুর্থ ম্যাচে ১৩১ রানের বড় ব্যবধানে রিয়াদদের বিপক্ষে জিতেছে শান্তরা। তাছাড়া প্রেসিডেন্টস কাপে শান্ত বাহিনীর সঙ্গে লড়াই করে এখনো পেরে ওঠেনি রিয়াদের দল। শুধু তাই নয়, পুরো আসরে শান্তরা মাত্র একবারই হেরেছে। তবে সেটা রিয়াদদের বিপক্ষে নয়, তামিম বাহিনীর কাছে। এবারের প্রেসিডেন্টস কাপে তামিমের দল একটি ম্যাচই জিতেছে তাও আবার শান্ত বাহিনীর বিপক্ষে।

এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়