টটেনহ্যামের অভিশাপ বেল

আগের সংবাদ

'পাঠান’ দিয়েই ফিরছেন বলিউড কিং শাহরুখ

পরের সংবাদ

ফের সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার অবনতি

প্রকাশিত: অক্টোবর ২০, ২০২০ , ১০:০৫ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ২০, ২০২০ , ১০:০৫ অপরাহ্ণ

ফের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়েছে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের। ক্রমান্বয়ে শারীরিক অবস্থা ক্রমশ স্বাভাবিক হলেও হঠাৎকরেই তার স্নায়ুতন্ত্রের সমস্যা ফের প্রকট আকার ধারণ করেছে।

অভিনেতার চিকিৎসক টিমের ক্রিটিকাল কেয়ার ইউনিট বিশেষজ্ঞ ডা. অরিন্দম করের উদ্ধৃতি দিয়ে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জানিয়েছে মঙ্গলবার সন্ধায় অভিনেতার “গ্লাসগো কোমা স্কেল” নেমে গিয়েছে অনেকটাই। সুস্থ স্বাভাবিক মানুষের শরীরে এই স্কেলের মান থাকে ১৫। এদিন অভিনেতার জিসিএস স্কোর গিয়ে দাঁড়ায় ৯-এ। আশঙ্কার বিষয় হল এই সূচক ৩-এ পৌঁছলেই রোগীর ব্রেন ডেথ ধরা হয়।

আচমকা অভিনেতার শারীরিক অবস্থা সংকটজনক হয়ে পড়ায় দ্রুত মিটিং এ বসেন বেলভিউ হাসপাতালে তাঁর চিকিৎসার দায়িত্বে থাকা ১৬ জনের টিম।

বিগত কয়েকদিন ধরে ইমিউনোগ্লোবিউলিন এবং উচ্চমাত্রায় স্টেরয়েড দেওয়া হচ্ছিল অভিনেতাকে। স্টেরয়েড ছাড়া স্বাভাবিকভাবে তাঁর মস্তিষ্ক কাজ করছে কি না তা দেখার অপেক্ষায় ছিলেন চিকিৎসকরা। কিন্তু সেখানেই দেখা গিয়েছে সমস্যা।

ডা. অরিন্দম কর বলেন, স্নায়ুর কার্যকলাপ স্বাভাবিক করতে আবার স্টেরয়েড এবং ইমিউনোগ্লোবিউলিন দেওয়া হচ্ছে। যদি তাতে কাজ না হয়, তাহলে অন্যরকম কিছু ভাবতে হবে বলেই জানিয়েছেন ডা. কর।

বেলভিউয়ে তাঁর চিকিৎসার দায়িত্বে থাকা ডাক্তাররা আরও জানান, মস্তিষ্কের আচ্ছন্ন ভাব কেটে গিয়েছে বলে আমরা আশা করেছিলাম। কিন্তু ধারণা ভুল ছিল। কবে তিনি স্বাভাবিক হবেন তা নিয়ে চিকিৎসকদের মধ্যেই প্রশ্ন চিহ্ন দেখা গিয়েছে। তবে এর মধ্যেও রয়েছে কিছু ভালো খবর। হাসপাতাল সূত্রে জানানো হয়েছে, কয়েক দিন আগে পর্যন্ত দৈনিক ১০ লিটার পর্যন্ত অক্সিজেন দিতে হচ্ছিল বর্ষীয়ান এই অভিনেতাকে। কিন্তু শারীরিক সুস্থতা কিছুটা ফেরায় এখন তা নেমে এসেছে ৪ লিটারে। অনেক সময় অক্সিজেনের সাহায্য ছাড়াই তিনি থাকতে পারছেন। সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের কিডনি, যকৃৎ, হার্ট-সহ সমস্ত অঙ্গপ্রত্যঙ্গই ঠিকঠাক কাজ করছে বলে হাসপাতাল সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে জানায় ভারতীয় গণমাধ্যম।

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়
close