যুবলীগ কর্মী হত্যা মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান কারাগারে

আগের সংবাদ

রিজভীর দফতরের দায়িত্বে প্রিন্স

পরের সংবাদ

কালেরপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান পদে ভোটযুদ্ধ কাল

প্রকাশিত: অক্টোবর ১৯, ২০২০ , ৮:৩৭ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ১৯, ২০২০ , ৮:৩৮ অপরাহ্ণ

বগুড়ার ধুনট উপজেলার কালেরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচন আগামীকাল মঙ্গলবার (২০অক্টোবর) অনুষ্ঠিত হবে। ইতিমধ্যে ভোট গ্রহণের সকল আয়োজন সম্পন্ন করেছে নির্বাচন কমিশন। এই নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৪জন।

প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারীরা হলেন আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী হারেজ উদ্দিন আকন্দ (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী সাজ্জাদ হোসেন শিপন (মোটরসাইকেল), তরিকুল ইসলাম (ঘোড়া) ও লিটন আহম্মেদ (আনারস)।

জানা যায়, গত ৪ অক্টোবর প্রতীক পাওয়ার পর থেকেই প্রার্থীরা নির্বাচনী প্রচারনা শুরু করেন। ভোটারের দ্বারে দ্বারে গিয়ে নিজেদের প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করেছেন। রবিবার মধ্যরাতে টানা ১৫ দিনের নির্বাচনী প্রচারণা শেষ হয়েছে। সোমবার সকাল থেকেই বিভিন্ন কেন্দ্রে ভোট গ্রহণের প্রস্তুতি নিতে থাকেন দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা। মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে ভোট গ্রহণ।

ধুনট উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২০১৬ সালের ২৩ এপ্রিল নির্বাচনে উপজেলার কালেরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে সাইফুল ইসলাম ফটিক নির্বাচিত হন। বার্ধক্যজনিত কারণে ২০২০ সালের ১৫ ফেব্রুয়া‌রি তিনি মৃত্যুবরণ করেন। এ কারণে ১৬ ফেব্রুয়া‌রি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কালেরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদ শুন্য ঘোষণা করেন। এ অবস্থায় গত ১৫ সেপ্টেম্বর নির্বাচন কমিশন কালেরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনের তফশিল ঘোষণা করেন। তফশীল অনুযায়ী গত ২৩ সেপ্টেম্বর ৫জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। গত ৩ অক্টোবর একজন প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোকাদ্দেস আলী বলেন, কালেরপাড়া ইউনিয়নে ৯টি ওয়ার্ডের মোট ভোটার সংখ্য ২১ হাজার ৪৬৫ জন। এরমধ্যে পুরুষ ১০ হাজার ৫৮৮ জন এবং নারী ভোটার ১০ হাজার ৮৭৭ জন। অত্র ইউনিয়নের ৯টি কেন্দ্রের ৬৮টি বুথে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

ধুনট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সঞ্জয় কুমার মহন্ত বলেন, কালেরপাড়া ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনের সকল প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। নির্বাচনে একজন জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট এবং ৩জন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেট দায়িত্ব পালন করবেন। এছাড়া ভোট কেন্দ্রে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশ, সাদা পোশাকে পুলিশ সদস্যরা দায়িত্ব পালন করবেন।

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়