বিস্ফোরণে ৫০ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ চেয়ে রিট

আগের সংবাদ

ফের জয় তুলে নিতে ব্যর্থ জার্মানি

পরের সংবাদ

ভোরের কাগজে সংবাদ প্রকাশ

প্রভাবশালীদের কবল থেকে শ্মশানের জায়গা উদ্ধার

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৭, ২০২০ , ১২:৪২ অপরাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ৭, ২০২০ , ৪:০৩ অপরাহ্ণ

মামলা-মোকদ্দমা কিংবা সৎকারে বাধা দিয়ে শ্মশানের জায়গা নিজেদের দখলে রাখতে চেয়েছিল ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলার রুটি গ্রামের প্রভাবশালী একটি গোষ্ঠী। বিষয়টি নিয়ে সম্প্রতি ভোরের কাগজে ‘আখাউড়ায় শ্মশানে সৎকারে বাধা দিচ্ছেন প্রভাবশালীরা’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। এতে বিষয়টি উপজেলা প্রশাসন, রাজনীতিবিদসহ জনপ্রতিনিধিদের নজরে আসে। দ্রুত ব্যবস্থা নিয়ে জায়গাটি প্রভাবশালীদের কবল থেকে উদ্ধারের প্রতিশ্রুতি দেন তারা। বিষয়টি স্থানীয় সংসদ সদস্য ও আইনমন্ত্রী আনিসুল হককেও অবগত করা হয়।

রবিবার (৬ সেপ্টেম্বর) সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ নূরে-এ-আলম রুটি গ্রামে গিয়ে শ্মশানের জায়গাটি উদ্ধার করে শ্মশান কমিটি ও স্থানীয় হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের কাছে বুঝিয়ে দেন।

জানা যায়, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উভয়পক্ষ ও গ্রামের লোকজনের উপস্থিতি সরকারি আমিন দিয়ে প্রথমে শ্মশানের জায়গাটি পরিমাপ করেন। পরে শনাক্তকৃত জায়গায় লাল নিশান পুঁতে দেয়ার পাশাপাশি দুটি সাইনবোর্ড টাঙিয়ে দেয়া হয়। এ সময় তিনি শ্মশানের জায়গায় প্রভাবশালীদের থাকা মালামালও সরিয়ে নিতে নির্দেশ দেন। ইউএনও মোহাম্মদ নূরে-এ-আলম বলেন, জায়গাটি পুনঃউদ্ধার করে শ্মশান কর্তৃপক্ষের কাছে বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, রুটি গ্রামে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের মরদেহ সৎকারের জন্য ৮২ শতাংশ জায়গার একটি শ্মশান রয়েছে। প্রয়াত আমীর হোসেন সরকারের পরিবার ও গোষ্ঠীর লোকজন এখানে সৎকার করতে বাধা দেয়।

ডিসি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়