সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ৭ প্রকল্প অনুমোদন

আগের সংবাদ

অসুস্থতা নিয়েও সাহেদের ‘নাটক’

পরের সংবাদ

ভিয়েতনামের উৎপাদন ভারতে স্থানান্তর করছে স্যামসাং

প্রকাশিত: আগস্ট ১৮, ২০২০ , ৩:৫৪ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ১৮, ২০২০ , ৩:৫৪ অপরাহ্ণ

ডিভাইস উৎপাদন লাইনে বৈচিত্র্য আনতে কাজ করছে ইলেকট্রনিকস জায়ান্ট স্যামসাং। ভারতে ডিভাইস উৎপাদনের লক্ষ্যে কার্যক্রম ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করছে প্রতিষ্ঠানটি। তারই অংশ হিসেবে ভিয়েতনামসহ অন্যান্য দেশ থেকে স্মার্টফোন উৎপাদনের বড় একটি অংশ স্থানান্তর করে ভারতে স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়াভিত্তিক বৃহৎ এ কম্পানিটি। এরই মধ্যে দেশটিতে আগামী পাঁচ বছরে ৪ হাজার কোটি ডলারের (৩ লাখ কোটি রুপি) স্মার্টফোন উৎপাদনের পরিকল্পনা চূড়ান্ত করেছে প্রতিষ্ঠানটি। সংশ্লিষ্ট সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে এমন তথ্য জানিয়েছে ইটি টেলিকম।

স্যামসাংয়ের সবচেয়ে বড় এবং বিশ্বের বৃহৎ স্মার্টফোন কারখানাটিও ভারতেই অবস্থিত। ভারত সরকারের ‘প্রোডাকশন লিংকড ইনসেনটিভ’ বা পিএলআই স্কিম সুবিধার আওতায় এখন ভিয়েতনাম ও অন্যান্য দেশের স্মার্টফোন উৎপাদন কার্যক্রমও ভারতে সরিয়ে নিতে চাইছে প্রতিষ্ঠানটি।

প্রতিবেদন অনুযায়ী, চীনের পরই ভিয়েতনাম হলো বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহৎ স্মার্টফোন রপতানিকারক দেশ। তবে ভারত সরকার এখন স্থানীয় উৎপাদনে গুরুত্ব দিচ্ছে। দেশটিতে স্মার্টফোনসহ আনুষাঙ্গিক অন্যান্য তথ্যপ্রযুক্তি পণ্য উৎপাদনে নানা ধরনের সুযোগ-সুবিধা দিচ্ছে নরেন্দ্র মোদি সরকার। এরই মধ্যে স্থানীয়ভাবে তথ্যপ্রযুক্তি পণ্য উৎপাদনে পিএলআই ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এর পরই অ্যাপল ও স্যামসাংসহ অন্যান্য ডিভাইস নির্মাতা ভারতে স্মার্টফোন উৎপাদন কার্যক্রম জোরদারে মরিয়া হয়ে উঠেছে।

এমআই

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়