বন্যায় ধসে পড়েছে ২৫০ কোটি টাকায় নির্মিত সড়ক

আগের সংবাদ

গণপরিবহনে অতিরিক্ত ভাড়া, ৬১ হাজার টাকা জরিমানা

পরের সংবাদ

প্রথা ভেঙেছিলেন কারিনা

লাইভ বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত হয়েছে: আগস্ট ৮, ২০২০ , ৩:৪৪ অপরাহ্ণ

সম্প্রতি বলিউড অভিনেতা সাইফ আলি খান জানিয়েছিলেন, তারকা সন্তান হওয়া সত্ত্বেও কেমন ভাবে তিনি নেপোটিজমের শিকার হয়েছিলেন। এবার মুখ খুললেন তার স্ত্রী কারিনা কাপুর খান। তবে কারিনার সুর সাইফের চেয়ে খানিক আলাদা। তিনি নিজে নেপোটিজমের শিকার হয়েছেন এমনটা নয়। বরং ঐতিহ্যশালী কাপুর পরিবারের কন্যা হওয়ার সুবাদে খানিকটা সুবিধা তো পেয়েছিলেনই। যদিও কাপুর পরিবারে একটা সময়ে বাড়ির মেয়েদের সিনেমায় অভিনয় করা নিয়ে আপত্তি ছিল। কারিশমা কাপুর প্রথম সেই প্রথা ভেঙেছিলেন, তার পর কারিনা।

অভিনেত্রী বলছেন, ‘আমি ইন্ডাস্ট্রিতে ২১ বছর ধরে কাজ করছি। স্বজনপোষণের সুবিধা ব্যবহার করে এতদিন টিকে থাকা যায় না। এমন অনেক তারকা সন্তান আছেন, যারা বিনোদন জগতে সুবিধা করতে পারেননি।’ সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর পর থেকে তারকা সন্তানরা আমজনতার রোষের মুখে পড়েছেন। ট্রোলিংয়ের জন্য সোনাক্ষী সিংহ, আলিয়া ভাট, সোনম কাপুররা ইনস্টাগ্রামে লিমিটেড কমেন্ট করে দিয়েছিলেন। সেই তালিকায় ছিলেন কারিনা কাপুর খানও। সম্প্রতি তিনি সেই ফিল্টার উঠিয়ে দিয়েছেন।

কারিনার কথায়, ‘স্ট্রাগল আমাকেও করতে হয়েছে। কিন্তু যে পকেটে ১০ টাকা নিয়ে সব ছেড়ে ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করার জন্য এসেছে, তার স্ট্রাগলের তুলনায় আমারটা নগণ্য। কিন্তু তাতে আমার অপরাধবোধে ভোগার অর্থ হয় না। আমাদের তৈরি করেছেন দর্শক। তাদের জন্যই আমরা স্টার। কেন নেপোটিজম নিয়ে এত শোরগোল হচ্ছে জানি না! একটা সিনেমার, একজন অভিনেতার ভবিষ্যৎ কী হবে, শেষ বলবেন দর্শকই।’ নেপোটিজমের উল্টো স্রোতে সফল অভিনেতাদের উদাহরণে শাহরুখ খান, অক্ষয় কুমার, আয়ুষ্মান খুরানা, রাজকুমার রাওয়ের নামও করেছেন কারিনা।

এমএইচ