দাউদকান্দিতে জায়গা নিয়ে বিরোধে যুবককে পিটিয়ে হত্যা

আগের সংবাদ

কোরবানির পশুর বিক্রি নিয়ে শঙ্কায় চাঁদপুরের খামারিরা

পরের সংবাদ

কাঠগড়ায় কেঁদে বললেন আমি করোনা রোগী

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশিত হয়েছে: জুলাই ১৬, ২০২০ , ১:১৩ অপরাহ্ণ

আদালতের কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে কান্নাজড়িত কণ্ঠে সাহেদ বললেন, আমার বাবা করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। আমি নিজেও করোনা রোগী। একমাত্র আমিই বেসরকারি হাসপাতালে করোনা রোগীর চিকিৎসা সেবা দেই। আমি এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত নই। বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) ঢাকা মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে তোলা হলে রিমান্ড শুনানির মাঝখানে বিচারককে তিনি এসব কথা বলেন।

রাষ্ট্রপক্ষের কৌশলী আবু আব্দুল্লাহ। তিনি জানান, অভিযুক্তরা করোনা ভাইরাসের ভূয়া রিপোর্ট দিয়ে রাষ্ট্রের ক্ষতি করেছেন। এমনকি বিদেশ থেকেও এজন্য অনেককে ফেরত আসতে হয়েছে। তাই তদন্তের স্বার্থে রিমান্ডের আবেদন মঞ্জুরের অনুরোধ করেছেন তারা।

এরআগে, বুধবার সাতক্ষীরা থেকে গ্রেপ্তার করে ঢাকায় আনার পর সাহেদ দাবি করেন তার বুকে ব্যথ্যা হচ্ছে। পরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে তার এক্সরে ও ইসিজি করা হয়। চিকিৎসক ও র‌্যাব কর্মকর্তারা জানান, সব রিপোর্ট ভালো এসেছে, কোনও সমস্যা নেই।

এদিকে করোনা পরীক্ষার নামে প্রতারণার অভিযোগে রিজেন্ট হাসপাতাল ও রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান মো. সাহেদকে বৃহস্পতিবার সকালে আদালতে তুলে পুলিশ ১০ দিনের রিমান্ড চায়। এ বিষয়ে রাষ্ট্রপক্ষের শুনানি শেষে বিচারক তাকে জিজ্ঞেস করেন তার কিছু বলার আছে কিনা। তখন কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে কান্নাজড়িত কণ্ঠে সাহেদ নিজেকে করোনা রোগী দাবি করে এসব কথা বলেন।

এসএইচ