করোনার আতঙ্কে ডাক্তার শূন্য স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

আগের সংবাদ

করোনায় জাপানে মাসব্যাপি জরুরি অবস্থা জারি

পরের সংবাদ

করোনা পরিস্থিতেও সক্রিয় চোর, আটক দুই

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশিত হয়েছে: এপ্রিল ৭, ২০২০ , ৭:০১ অপরাহ্ণ

করোনার প্রাদুর্ভাবে পুরো রাজধানী কার্যতই লকডাউন রয়েছে। এ অবস্থায় অনেকেই দেশের বাড়ি চলে যাওয়ায় অধিকাংশ এলাকাই এখন ফাঁকা। আর এ সুযোগকে কাজে লাগাতে সক্রিয় রয়েছে চোরচক্র। তারা সুযোগ বুঝে নিরিবিলী এলাকার মুদি দোকান থেকে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য চুরি করছে। এমনই চোর চক্রের ২ সদসস্যকে গ্রেপ্তার করেছে ডেমরা থানা পুলিশ।

গ্রেপ্তারের সময় তাদের কাছ থেকে ৩৪ বস্তা চাউল, বিভিন্ন কোম্পানীর প্রায় ১০৪ লিটার সোয়াবিন তৈল, ১টি ক্যানন প্রিন্টার, ফ্রেস কোম্পানীর প্রায় ২০ লিটার সোয়াবিন তৈল, প্রায় ১৫ কেজি ডিটারজেন্ট পাউডার, লেকটোজেন, সেরিলেক ও সেরি গ্রুপের ৩টি দুধের প্যাকেট উদ্ধার করা হয়।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া এন্ড পাবলিক রিলেশন্স সেন্টারের অতিরিক্ত উপকমিশনার আবু আশরাফ সিদ্দিকী ভোরের কাগজকে জানান, ডেমরা থানার এসআই মো. রেজাউল করিম সোমবার (৬ এপ্রিল) সকাল পৌনে ৬টার দিকে টহল দেয়ার সময় মুসলিমনগর জিরো পয়েন্টে একটি পিকআপে নিত্যপ্রয়োজনীয় মালামাল দেখতে পায়। পরে ওই মালামালের ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করা হলে কোন সদুত্তর দিতে না পারায় মো. ইদ্রিস আলী (৩৫) ও মো. রবিউল আলম (২৯) নামের দুইজনকে আটক করা হয়।

তিনি জানান, গত রবিবার গভির রাত থেকে সোমবার ভোর পর্যন্ত যে কোনো সময় ডেমরা থানার মুসলিমনগর জিরো পয়েন্ট এলাকায় সানমুন জেনারেল স্টোর নামক একটি মুদির দোকান ও পার্শ্ববর্তী আরেকটি দোকানের সার্টারের তালা ভেঙ্গে মালামাল চুরি হয়েছে। এ ঘটনায় দোকান মালিক মো. হুমায়ুন কবিরের অভিযোগের ভিত্তিতে ডেমরা থানায় একটি মামলাও হয়েছে। রেজিস্ট্রেশন বিহীন পিকআপটির মালামালই হুমায়ুন কবির ও জহিরুল ইসলামের দোকানের মালামাল।

এমএইচ