সবুজবাগ সরকারি কলেজে নবীনবরণ

আগের সংবাদ

‘লাথি’ হুমকিকে ‘গুড’ বললেন ড. কামাল

পরের সংবাদ

আর্থিকখাত ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে লুটপাট বন্ধের দাবি – বাম জোটের

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশিত হয়েছে: ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২০ , ৫:৩৮ অপরাহ্ণ

বর্তমান সরকারের আর্থিক লুটপাটকে উৎসাহিত করছে, যার ফলে ব্যাংক বীমা-আর্থিক খাত ধ্বংসের দ্বার প্রান্তে। যা বন্ধের জোর দাবি জানিয়েছে বাম গণতান্ত্রিক জোট।

শনিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সংবাদপত্রে দেয়া এক যৌথ বিবৃতিতে জোটের নেতারা বলেন, সরকারের আর্থিক নীতি ব্যাংক-বীমাসহ আর্থিক খাতকে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছে এবং যা লুটপাটকে উৎসাহিত করছে। সবচেয়ে উদ্বেগজনক বিষয় হলো সম্প্রতি সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও স্বশাসিত ৬১টি প্রতিষ্ঠানের উদ্বৃত্ত অর্থ সরকারি তহবিলে জমা দেয়ার বিধান সম্বলিত বিল সংসদে পাশ হওয়ার মধ্য দিয়ে বাস্তবে ব্যাংক ও আর্থিক খাতে সংকটের শেষ পেরেক ঠোকা হয়েছে। যা শিক্ষা বোর্ড, ধান গবেষণা কেন্দ্র, কৃষি গবেষণা কেন্দ্র, বাপেক্স, পেট্রোবাংলা, বিপিসিসহ বিভিন্ন সরকারি আধাসরকারি-স্বায়ত্তশাসিত-স্বশাসিত প্রতিষ্ঠানের স্বাভাবিক কর্মকাণ্ডকে ক্ষতিগ্রস্থ করবে।

বামজোটের নেতারা ব্যাংক-আর্থিক খাতের এধরনের গণবিরোধী ও লুটপাটের নীতি বন্ধ করে আত্মঘাতি সিদ্ধান্ত বাতিলের জোর দাবি জানিয়েছেন। একই সাথে লুণ্ঠনকারী ঋণখেলাপীদের পাহারাদার বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ গণআন্দোলন গড়ে তোলার জন্য সকল বাম-প্রগতিশীল-গণতান্ত্রিক দেশপ্রেমিক রাজনৈতিক দল-ব্যক্তি-গোষ্ঠীর প্রতি আহ্বান জানান তারা।

জোটের নেতারা বলেন, খেলাপী ঋণ এর অবলোপনের সিদ্ধান্ত এবং ঋণখেলাপীদের ২ শতাংশ টাকা দিয়ে ঋণের খেলাপী থেকে মুক্তি এবং ১০ বছরের জন্য ঋণ পরিশোধের রেয়াত ঘোষণা অবিলম্বে বাতিল, সরকারের বাজেট ঘাটতি মেটাতে ব্যাংক থেকে ঋণ নেয়া বন্ধ করা।

বাম গণতান্ত্রিক জোট কেন্দ্রীয় পরিচালনা পরিষদের সমন্বয়ক ও বাসদ নেতা বজলুর রশীদ ফিরোজ, কেন্দ্রীয় পরিচলনা পরিষদের শীর্ষ নেতা সিপিবির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, সাধারণ সম্পাদক মো. শাহ আলম, বাসদ সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, বাসদ (মার্কসবাদী) সাধারণ সম্পাদক মুবিনুল হায়দার চৌধুরী, ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু, গণসংহতি আন্দোলনের আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু ও সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের আহ্বায়ক হামিদুল হক এ বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেন।

এসআর