স্যানিটেশনে বদলে গেছে সুনামগঞ্জ

আগের সংবাদ

বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের দল ঘোষণা

পরের সংবাদ

ট্রাম্পের হুমকির নিন্দা চীনের,পাশে নেই যুক্তরাজ্যও

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত হয়েছে: জানুয়ারি ৬, ২০২০ , ১০:১৪ অপরাহ্ণ

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ইরানের ঐতিহাসিক সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যবাহী স্থাপনায় সামরিক হামলার হুমকি দেয়। দেশ দুটির মধ্যে চলমান যুদ্ধাবস্থার মধ্যে আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন করে সাংস্কৃতিক লক্ষ্যে হমলা চালানো এ হুমকি নিন্দা জানিয়ে চীন এসব স্থাপনাকে বিশ্ব ঐতিহ্যের অংশ হিসেবে বর্ণনা করে।

অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্রের অন্যতম মিত্র যুক্তরাজ্যও আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন করে এমন কোন হামলা সমর্থন করবে না বলে জানায় তবে দেশটির পক্ষ থেকে সরাসরি আমেরিকার হুমকির নিন্দা জানানো হয়নি।

ইরাকের রাজধানী বাগদাদে ইরানের সর্বোচ্চ সামরিক কমান্ডার কাসেম সোলাইমানিতক হত্যা করে যুক্তরাষ্ট্র। ড্রোন হামলায় নিহত কুর্দ ফোর্সের প্রধান এ জেনারেলকে হারিয়ে কঠোর প্রতিশোধের হুমকি দেয় ইরান। তারপরেই ইরান কোন হামলা করলে দেশটির ৫২ টি লক্ষ্যবস্তুতে পাল্টা হামলার হুমকি দেয় মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এসব লক্ষ্যবস্তুর মাঝে ইরানের অনেক গুরুত্বপূর্ণ ও ঐতিহাসিক স্থাপনা রয়েছে বলেও ট্রাম্প তার হুমকিতে উর্লেখ করেছিলেন।

ট্রাম্পর এমন হুমকি আন্তর্জাতিক আইনের সরাসরি লঙ্ঘন। আন্তর্জাতিক আইন অনুযায়ি সাংস্কৃতিক কোন স্থাপনায় সামরিক হামলা চালানো নিষেদ্ধ। তবে যুক্তরাষ্ট্রে ও সারা বিশ্বে এ হুমকির সমালোচনা হলেও বারবার এ হুমকি দিচ্ছেন ট্রাম্প। রবিবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রেসিডেন্ট এমন কোন হামলা চালাবেন না বলার পর দিনই আবার ট্রাম্প তার কথায় অনড় আছেন বলে জানায়।

এর আগে ২০১৭ সালে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষধের একটি ট্রিটিতে স্বাক্ষর করে যেখানে সাংস্কৃতিক স্থাপনায় যে কোন ধরনের হামলা নিষিদ্ধ করা হয়। তাছাড়া ১৯৫৪ সালের হ্যাগ কনভেনশন অনুযায়িও এ ধরনের হামলা কঠোরভাবে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

অন্যদিকে ইরাকের সংসদে মার্কিন  সৈন্য প্রত্যাহারের একটি বিল পাশ হওয়ার পর ইরাকের ওপরও অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপের হুমকি দিয়েছেন অভিশংসনে পরতে যাওয় ব্যবসায়িক এ প্রেসিডেন্ট।

নকি