পাল্টাপাল্টি কর্মসূচিতে স্থবির জাবি

আগের সংবাদ

হার্ডিঞ্জ ব্রিজে বিপদসীমার রেকর্ড ভাঙলো পদ্মা

পরের সংবাদ

মঙ্গলগ্রহে ভূমিকম্প!

প্রকাশিত: অক্টোবর ২, ২০১৯ , ১:১০ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ২, ২০১৯ , ১:১০ অপরাহ্ণ

গত ১লা অক্টোবর মঙ্গলবার নাসা মঙ্গল গ্রহে ভূমিকম্পের শব্দের দুটি অডিও ক্লিপ প্রকাশ করেছে। নাসা গত বছরের শেষদিকে গ্রহের পৃষ্ঠে একটি অতি সংবেদনশীল ডিটেক্টর বসায়।

ভূমিকম্পগুলির শব্দ সাধারনভাবে মানুষের কান দ্বারা শোনা সম্ভব নয়, দূরত্বের কারণ সেগুলির শব্দ খুবই কম ছিল। মে এবং জুলাই মাসে অভ্যন্তরীণ কাঠামোর জন্য সিসমিক পরীক্ষা-নিরীক্ষা দ্বারা ভূমিকম্পগুলির ক্রিয়াকলাপের শব্দ রেকর্ড করা হয়।

বিজ্ঞানীরা আশা করছেন যে মঙ্গলগ্রহের গভীর অভ্যন্তরীণ কাঠামোর মধ্য দিয়ে ভূমিকম্পের তরঙ্গগুলি কীভাবে চলাচল করে তা প্রথমবারের মতন প্রকাশ করবেন তারা।

গত বছর নভেম্বরে নাসার ইনসাইট ল্যান্ডার বহন করে গম্বুজ আকারের এসইআইএস ডিভাইসটি মঙ্গলগ্রহে পাঠানো হয়। যা দ্বারা এ পর্যন্ত প্রায় ২০টি তথাকথিত “মার্সকয়েক” সনাক্ত করা হয়েছে। যার শব্দ খুবই কম, তবে সেখানে কিছু গোলমালের শব্দ হচ্ছে বলে মনে করেন তারা। শব্দগুলোকে প্রক্রিয়া করে উচ্চতর শব্দে পরিণত করা হয়েছে যাতে সাধারণভাবে মানুষ শুনতে পায়। ফ্রেঞ্চ স্পেস এজেন্সি সিএনইএস এবং পার্টনারদের দ্বারা এসইআইএসটি বানানো হয়েছিল।

নাসার জেট প্রোপালশন ল্যাবরেটরি জানিয়েছে মঙ্গলগ্রহের একটি ভূমিকম্পের পরিমাণ ছিল ৩.৭ এবং অন্যটি ছিল ৩.৩ মাত্রার। যা থেকে বোঝা যাচ্ছে যে গ্রহের মার্টিয়ান ক্রাস্টগুলি পৃথিবীর ভূত্বক এবং চাঁদের মিশ্রণের মতোই। তার করতলভূমি সহ বেশকিছুটা অংশ চাঁদের মতোই। গ্রহে ভূমিকম্পের তরঙ্গ এক মিনিট বা তার বেশি সময় দীর্ঘস্থায়ী হয় যেখানে পৃথিবীর ভূমিকম্প কয়েক সেকেন্ডের হয়।

ভুমিকম্পের অডিও দুটি এখানে শোনা যাবেঃ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়