বিস্তারিত রাত্রি

আগের সংবাদ

চেতনাপ্রবাহ ও জীবনতৃষ্ণা

পরের সংবাদ

সময় পাবো মোলে

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৯ , ৭:২৫ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৯, ৭:২৬ অপরাহ্ণ

কাগজ প্রতিবেদক

রোদ বললে, ‘ভিজবি আলোয়?
পাহাড় নদীর কোলে’?
আমি কৈলেম, ‘শোন্ রোশনি,
আসবো সুযোগ হলে’।

রোদ শুধোলে, ‘সাঁঝের বেলা,
ডাকিস সময় হলে,
ঘুরবো তোকে সঙ্গে নিয়ে
আবির রাঙা জলে’।

মেঘ বললে, ‘ভিজবি জলে?
ভাসবি দোলায় দুলে’?
আমি বললেম ‘না রে পাগল,
সময় পাবো মোলে’।

মেঘ শুধালে, ‘ছি ছিঃ একি,
এসব কথা থাক,
কাজ জুড়োলে, মন টানলে,
নামটা ধরে ডাক’।

বাতাস ডাকে আয় চলে আয়,
ফুলের সুবাস মেখে,
আমি বললেম, ‘ছেড়ে দে আজ,
আসবো সময় দেখে’।

বায়ু শুধায়, ‘কিসের কাজে,
আটকে পড়িস রোজ’?
আমি বললেম, ‘বুঝবি কি আর,
নিত্য দিনের বোঝ’।

সাগর ডাকে, ‘খেলবি আজি?
সবুজ কাচের জলে?
ঢেউয়ের কোলে টুপুর টাপুর
বৃষ্টি শুরু হলে’?

আমি বললেম, ‘মাফ কর হে,
আমার ভীষণ কাজ,
ইচ্ছে করে সাগর দোলায়,
বেরিয়ে পড়ি আজ’।

মাছ বললে, ‘যাবি নাকি?
নদীর গভীর তলে?
লাল নীল সব নুড়ির মেলা,
অবাক হবি গেলে’।

আমি কৈলেম, ‘না রে মাণিক,
আরেকটা দিন যাবো,
পথে ঘাটে আটকে পড়ি,
সময় কখন পাবো’?

চাঁদ ডাকলে, ‘জ্যোৎস্না আলোয়
রসে সাজে নভো,
দিলাম পাখা, আয় চলে আয়
কত কথা কবো’।

আমি বললেম, ‘থাক না শশী,
ডাকিসনে তুই আজ,
কাজের পালা সাঙ্গ হলে,
ওড়াবো পক্ষীরাজ’।

গভীর রাতের তারারা তাই,
মিটি মিটি হাসে,
কাজ ফুরোলে জ্বলবি যে ঐ,
ছোট্ট তারার পাশে।