ডিএনসিসির দ্বিতীয় দফা চিরুনি অভিযান শুরু

আগের সংবাদ

চট্টগ্রামে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা

পরের সংবাদ

সৌদি তেল শোধনাগারে হামলার ঘটনায় ইরানকে দায়ী করল যুক্তরাষ্ট্র

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৯ , ১:১৯ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৯, ১:২০ অপরাহ্ণ

Avatar

সৌদি আরবের তেল শোধনাগারে শনিবারের ড্রোন হামলার জন্য ইরানকে দায়ী করলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও।

ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহীরা সৌদি রাষ্ট্রীয় খাতের প্রতিষ্ঠান আরামকো পরিচালিত দুটি তেল শোধনাগারে এই হামলার দায় স্বীকার করলেও মাইক পম্পেও তাদের সেই দাবি নাকচ করে দেন।

এক টুইট বার্তায় পম্পেও বলেন, ইয়েমেন থেকেই যে ড্রোনগুলো এসেছিল, তার ‘কোন প্রমাণ নেই’। তার বর্ণনায় বিশ্বের তেল সরবরাহে এটি ছিল একটি নজিরবিহীন হামলা। আমরা পৃথিবীর সব জাতিকে আহ্বান জানাই ইরানের এই হামলার প্রকাশ্য ও দ্ব্যর্থহীন নিন্দা জানাতে।

তিনি আরো বলেন, বিশ্বের জ্বালানী সরবরাহ স্বাভাবিক রাখতে যুক্তরাষ্ট্র তার মিত্রদের সাথে কাজ করবে। হোয়াইট হাউজ বলছে, সৌদি আরব যাতে তাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পারে এজন্য তাদেরকে সাহায্যের প্রস্তাব দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

সৌদি আরবের জ্বালানী মন্ত্রী জানান, এই হামলার কারণে অপরিশোধিত তেল উৎপাদন দৈনিক ৫৭০ লাখ ব্যারেল হ্রাস পেয়েছে। দেশটির দৈনিক তেল উৎপাদনের অর্ধেকের সমান এটা।

পশ্চিমাদের সমর্থিত সৌদি নেতৃত্বাধীন সামরিক জোট ইয়েমেনের সরকারকে সমর্থন দিয়ে আসছে। ওদিকে দেশটির হুতি বিদ্রোহীদের সমর্থন দেয় ইরান।