‘ডেঙ্গুতে একজন মানুষের মৃত্যুও কাম্য নয়’

আগের সংবাদ

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বন্ধ থ্রি-জি ও ফোর-জি

পরের সংবাদ

প্রতারণার দায়ে কারাগারে থাই নাগরিক

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯ , ৮:০৬ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯, ১:২৪ পূর্বাহ্ণ

কাগজ প্রতিবেদক

প্রতারণা, আত্মসাত ও বিশ্বাস ভঙ্গের মামলায় থাই নাগরিক কিয়াটকাট সমইয়োথকে জেল হাজতে পাঠিয়েছে আদালত। বুধবার (১১ সেপ্টেম্বর) সিএমএম কোর্টে বিচারক রাজেশ চৌধুরী তার জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

গত ৫ সেপ্টেম্বর সমইয়োথ এর বিরুদ্ধে একই আদালত গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছিলেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে তিনি আদালতে আত্মসমর্পন করতে এসেছিলেন। কিন্তু তদন্ত প্রতিবেদনে তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগুলো প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ায় বিচারক তার জামিন না মঞ্জুর করেন এবং জেল হাজতে পাঠান। বাদী পক্ষের আইনজীবীগণ তার জামিনের বিরোধিতা করেন।

সিয়াম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সমইয়োথ থানাপোল চাকপাওনাম ওরফে কিয়াটকাটি এর বিরুদ্ধে এর বিরুদ্ধে চলতি বছরের ১১ ফেব্রুয়ারি মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টে বিশ্বাস ভঙ্গ ও প্রতারণা ধারা ৪০৬ ও ৪২০ এবং আত্মাসাৎ এর ধারা ৪০৩ এ মামলাটি দায়ের করা হয়েছিল। এই মামলা করেছিলেন অমিত গ্রুপ। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল যে, তিনি ২০১৭ সালে একটি ক্লাবের লাইসেন্স অমিত গ্রুপের কাছে হস্তান্তরের জন্য চুক্তিবদ্ধ হন। চুক্তির সময় সমইয়োথ ১ কোটি টাকা গ্রহণ করেছিলেন। অথচ সেই শেয়ার তিনি ২০১১ সালেই অন্য কারো কাছে বিক্রি করে দিয়েছেন।

বাদী মামলাটি এই আদালতে দায়ের করার পর আদালত মামলাটি পুলিশ বুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) কে তদন্তের নির্দেশ দেন। তদন্ত শেষে পিবিআই প্রতিবেদন দাখিল করে। প্রতিবেদনে সমইয়োথ থানাপোল চাওপাকনাম ওরফে কিয়াতকাতি এর বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির অপরাধমূলক বিশ্বাস ভঙ্গ ও প্রতারণা ধারা ৪০৬ ও ৪২০ এবং আত্মাসাৎ এর ধারা ৪০৩ অনুযায়ী অপরাধের প্রাথমিক সত্যতা পাওয়া যায়।

পিবিআই ইনপেক্টর রফিকুল ইসলাম গত জুনে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। তদন্ত তদারকি করেন পিবিআই এর বিশেষ পুলিশ সুপার মো. শাহাদাত হোসেন পিপিএম।