লন্ডনে ‘মেড ইন বাংলাদেশ’

আগের সংবাদ

‘ভদ্রপাড়া’য় আলোচিত অর্ষা

পরের সংবাদ

চলমান ‘বিদেশি বিরোধী সহিংসতার’ ঘটনায় দক্ষিণ আফ্রিকার রাষ্ট্রপতির নিন্দা

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৯ , ১২:১৯ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৯, ১২:২৩ অপরাহ্ণ

Avatar

দক্ষিণ আফ্রিকার রাষ্ট্রপতি সিরিল রামাফোসা জোহানেসবার্গ এবং রাজধানী প্রিটোরিয়া জুড়ে বিদেশীদের মালিকানাধীন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ব্যাপক লুটপাট ও অগ্নিসংযোগের ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার টুইটারে প্রকাশিত একটি ভিডিও বিবৃতিতে রামাফোসা বলেন, “দক্ষিণ আফ্রিকার কোনও দেশই অন্য দেশের লোকদের আক্রমণ লুটপাট ও সহিংসতা চালাতে পারে না।”

ভিডিও বিবৃতিতে তিনি আরও বলেন “বিদেশী নাগরিকদের দ্বারা পরিচালিত ব্যবসায়ের উপর হামলা সম্পূর্ণ অগ্রহণযোগ্য, এই ঘটনা আমরা দক্ষিণ আফ্রিকাতে চলতে দিতে পারি না,” তাই আমি চাই এটি অবিলম্বে বন্ধ হোক।

চলমান এই সহিংসতায় দক্ষিণ আফ্রিকাতে ৫ জনের প্রাণহানির ঘটনা ঘটে। সহিংসতায় প্রভাবিত পাঁচটি অঞ্চলে পুলিশ শতাধিক মানুষকে গ্রেপ্তার করেছে।

সোমবার অশান্তি নিরসনের প্রয়াসে পুলিশ টিয়ার গ্যাস, রাবার বুলেট এবং স্টান গ্রেনেড নিক্ষেপ করেছে। সহিংসতা বৃদ্ধির ফলে সহিংসতাকারীরা বিদেশীদের দোকান পাট লুট সহ বিদেশীদের সম্পত্তিতে হামলা চালায়। এসময় শহরের কিছু ক্ষুব্ধ বাসিন্দা সরকারকে অননুমোদিত অভিবাসীদের নির্বাসন দেওয়ার আহ্বান জানায়।

চলমান এই সহিংসতার সময় নিজ দেশের নাগরিকদের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হওয়ায় আফ্রিকান সরকারের ওপর অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেছে নাইজেরিয়ার রাষ্ট্রপতি মুহম্মু বুহারি। এক বিবৃতিতে দক্ষিণ আফ্রিকার দেশটির হাইকমিশন পরিস্থিতিটিকে “নৈরাজ্য” হিসাবে বর্ণনা করেছে।

অপরদিকে আফ্রিকার ইথিওপিয়ান দূতাবাস চলমান উত্তেজনার সময় তাদের নাগরিকদের সংঘাত থেকে নিজেকে দূরে রাখা ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার পরামর্শ দিয়েছে।