রবীন্দ্র প্রয়াণ দিবস আজ

আগের সংবাদ

সিরাজগঞ্জে কোরবানীর জন্য প্রস্তুত ১ লাখ ৪৪ হাজার গবাদিপশু

পরের সংবাদ

ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো হতাশ

খেলা প্রতিবেদক :

প্রকাশিত হয়েছে: August 6, 2019 , 1:02 pm

দেশের জনপ্রিয় বিপিএলের সপ্তম আসর বসবে এ বছর ৩ ডিসেম্বর। ইতোমধ্যে এই টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট নিয়ে ক্রিকেটপ্রেমীদের মাঝে উত্তেজনা শুরু হয়ে গেছে। তবে গত পরশু ভক্ত-সমর্থকদের উত্তেজনা আরো বাড়িয়ে দিয়েছে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল। তারা বলেছে, এবার প্রতিটি দলকে বিসিবির সঙ্গে নতুন করে চুক্তি করতে হবে। ফলে ক্রিকেটার থেকে শুরু করে দল সবকিছু নতুন চুক্তি অনুযায়ী হবে। এ ছাড়াও ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালনা পর্ষদের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ সদস্য মাহবুব আনাম জানিয়েছেন, আইকন হিসেবে সাকিব ও মুশফিকের চুক্তির কোনো বৈধতা নেই। তাই গত রবিবার সংবাদ সম্মেলনে হঠাৎ করেই বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের এ ঘোষণায় বেশ হতাশ ফ্রাঞ্চাইজিগুলো। সাকিব রংপুরে, তামিম ইকবাল কুমিল্লা ছেড়ে খুলনা টাইটান্সে ও চট্টগ্রাম ছেড়ে মুশফিকের কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সে নাম লেখানোর পর এমন ঘোষণায় ফ্রাঞ্চাইজিগুলোর হতাশ হওয়াটা স্বাভাবিক।
বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ গভর্নিং কাউন্সিল নিয়মনীতি মেনেই ঘোষণা দিয়েছে। এতদিন বিপিএল ফ্রাঞ্চাইজিগুলোর মালিকানায় যারা ছিল তাদের সঙ্গে নিয়ম অনুযায়ীই চুক্তির মেয়াদ শেষ। অর্থাৎ এতদিন যারা ফ্রাঞ্চাইজিগুলোর মালিক ছিল, এখন আর তারা মালিক নন। মালিক হতে হলে নতুন করে চুক্তি করতে হবে, নিবন্ধন করতে হবে। তবে এ বিষয় বেশ হতাশ হয়েই রংপুর রাইডার্সের সিইও ইসতিয়াক সাদিক জানিয়েছেন, চুক্তি স্বাক্ষর করা আনুষ্ঠানিকতা মাত্র। বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল তো মৌখিক এবং লিখিতভাবে আগেই জানিয়ে দিয়েছে টুর্নামেন্টের জন্য প্রস্তুতি নিতে। বিপিএল সপ্তম এডিশনের তারিখ ঘোষণা করেছে তারা। আমাদের ব্যাংক জামানত নবায়ন করতে বলা হয়েছে। আমরা জানি ফ্র্যাঞ্চাইজি থাকছি, তাহলে খেলোয়াড় নেয়াতে দোষ কোথায়?
নিয়ম পরিবর্তন করাই বিপিএলের নিয়ম হয়ে গেছে। গত তিন এডিশনেই ক্রিকেটার দলে নেয়ার নিয়মে পরিবর্তন এনেছে গভর্নিং কাউন্সিল। এ বিষয় রংপুর রাইডার্সের সিইও বলেছেন, বিসিবি থেকে বলা হয়েছিল এবারও পূর্বের নিয়ম বহাল থাকবে। বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল বলেছিল, আগামী তিন বছর খেলোয়াড় দলে নেয়ার নিয়মে কোনো পরিবর্তন আসবে না। সেই হিসেবে আমরা সব দলই খেলোয়াড় নিচ্ছিলাম। যেই আমরা সাকিবকে নিলাম তখনই ঝামেলা বেঁধে গেল।
এখন তারা বলছে বিপিএলের সব ফ্র্যাঞ্চাইজি বাতিল। তাই যদি হবে তাহলে টুর্নামেন্টের তারিখ ঘোষণা করে কীভাবে? আমাদের মৌখিক এবং মেইলে জানানো হয়েছে প্রস্তুতি নিতে। এখন যদি বলে নিয়মবহিভর্‚ত করা হয়েছে, তাহলে কিছু করার নেই।
এ ছাড়া বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের কর্মকর্তাদের সংবাদ সম্মেলনের পর খুলনা টাইটান্সের চেয়ারম্যান কাজী ইনাম আহমেদ বলেন, গত তিন বছর যেভাবে হয়েছে আমরা সেভাবেই প্রস্তুতি নিচ্ছিলাম।
বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল ও ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর সঙ্গে আলাপে আমরা নিশ্চিত ছিলাম আমরা থাকছি। যে কারণে খেলোয়াড় রিটেন করা, যারা খেলবে তাদের ফিটনেস দেখা। গত তিন বছর দেখেছি, আইকনরা তাদের পছন্দমতো দল পরিবর্তন করে। শুধু সাকিব ও রিয়াদ ছাড়া। তাই এবারও খেলোয়াড় নিচ্ছিলাম।