বিচিত্র মন

আগের সংবাদ

অস্বস্তিতে কোহলি

পরের সংবাদ

নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ

প্রকাশিত হয়েছে: June 3, 2019 , 1:31 pm | আপডেট: June 3, 2019, 1:31 pm

নেতিবাচক শিরোনামে খবরের পাতায় নেইমারের নাম নতুন কিছু নয়। তবে এবার তার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উঠেছে তা সত্যিই ভয়াবহ। প্যারিসে একটি হোটেলে নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ তুলেছেন এক নারী। সাওপাওলো পুলিশের কাছে তিনি এ অভিযোগ করেন। এ ব্যাপারে নেইমারের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। তবে নেইমারের বাবার দাবি, ঘটনাটি সাজানো এবং তার ছেলেকে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।
এ ব্যাপারে পুলিশ জানিয়েছে, মামলার বাদী গত ১৭ মে প্যারিস ছেড়ে যান এবং পুরো ঘটনায় মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েন। বিশেষ করে এক দেশের ঘটনায় অন্য দেশে মামলা করবেন কিনা সে বিষয়ে চিন্তায় পড়ে যান। অবশেষে নিজের বাসস্থান সাওপাওলোতেই মামলা করতে সিদ্ধান্ত নেন। ওই নারী পুলিশকে জানিয়েছেন, নেইমার নিজেই তার (মামলার বাদীর) ব্রাজিল-প্যারিস টিকিট এবং হোটেল বুকিং করে। পরে ১৫ মে সে নারী প্যারিস পৌঁছান। একইদিন রাতে নেইমারও সে হোটেলে যায়। তখন সে (নেইমার) মদ্যপ অবস্থায় ছিল এবং সে নারীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ আচরণ শুরু করে। পরে সে নারী বাধা দিলেও জোরপূর্বক যৌন সম্পর্ক স্থাপন করে নেইমার।
পুলিশের নথি অনুযায়ী, তদন্তের স্বার্থে সেই নারীর শারীরিক পরীক্ষা করা হয়েছে। নেইমারের বাবা ও তার এজেন্ট নেইমার সিনিয়র ধর্ষণের অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন। তার ভাষ্য, অভিযোগকারী নারীর সম্মতিতেই তার সঙ্গে যৌন সম্পর্ক ছিল নেইমারের। সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার পর সেই নারীর আইনজীবী এখন নেইমারকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছেন। ব্রাজিলের একটি টিভি চ্যানেলকে নেইমার সিনিয়র বলেন, ‘সময়টা কঠিন। দ্রæত সত্য জানাতে না পারলে এটা আরও বড় হবে। সেই নারীর সঙ্গে নেইমারের হোয়াটসঅ্যাপ বার্তা প্রকাশের প্রয়োজন হলে আমরা তা করব।
নেইমারের বাবা আরও দাবি করেছেন, এটা সাজানো ঘটনা এবং তার ছেলেকে যে ব্ল্যাকমেল করা হচ্ছে, সেই প্রমাণ আছে তার হাতে। সেটি ছবি ও প্রত্যক্ষদর্শী। তবে টিভি চ্যানেলে নেইমারের বাবা এ ধরনের কিছুই প্রকাশ করেননি। প্রয়োজন হলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে এবং সেই প্রস্তুতিও নেয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন নেইমারের বাবা। ব্রাজিলের জাতীয় দলের সঙ্গে এখন কোপা আমেরিকার প্রস্তুতিতে ব্যস্ত নেইমার। ১৪ জুন ব্রাজিলে শুরু হবে দক্ষিণ আমেরিকা মহাদেশীয় শ্রেষ্ঠত্বের এ লড়াই। গতকাল সতীর্থদের নিয়ে দিনের শুরুতেই ব্যক্তিগত হেলিকপ্টারে করে অনুশীলন মাঠ ছাড়েন নেইমার। ধর্ষণের অভিযোগ নিয়ে তিনি কোনো মন্তব্য করেননি।
নেইমার কিছু না বললেও ছেলের পাশে শক্তভাবেই দাঁড়িয়েছেন তার বাবা নেইমার সিনিয়র, ‘আমি জানি, আমার ছেলের বিরুদ্ধে অনেক অভিযোগই উঠতে পারে। কিন্তু সে কেমন ছেলে, কেমন পুরুষ এবং কেমন বাবা-মায়ের সন্তান তা আমি জানি। আমরা যত দ্রুত সম্ভব সুবিচার পেতে লড়াই করব।

বিষয়:
  • আরও পড়ুন
  • লেখকের অন্যান্য লেখা