দক্ষিণ আফ্রিকায় ডাকাতের গুলিতে বাংলাদেশি খুন

আগের সংবাদ

বাবার চশমা

পরের সংবাদ

নান্দনিক বন

প্রকাশিত: জুন ৩, ২০১৯ , ১২:৫০ অপরাহ্ণ আপডেট: জুন ৩, ২০১৯ , ৩:৩১ অপরাহ্ণ

পাতা ছায়া ঘেরা বারান্দায় আমি চেয়ে রই ঊর্ধ্বপানে,…
আকাশপানে মেঘমালা সাজিয়ে থরে থরে
নীল আকাশ চেয়ে রয় মায়াভরা চোখে মৃত্তিকার দিকে
সাদা মেঘের দিকে আমি আনমনে উদাস দৃষ্টিতে
মেঘ সরে আসে ক্রমে চাঁদ উঁকি দেয় গগনে
কানে বাজে রবীন্দ্রসংগীত আজ জোছনা রাতে সবাই গেছে বনে
সবুজ পাতা আর গোলাপি ফুলগুলো একে অপরের গায়ে গায়ে
প্রার্থনায় মগ্ন ওরা সমর্পণে নিবেদিত আত্মা ওদের
আমি স্পর্শ করি আলতো ছোঁয়ায় ওদের গায়ে
লতাগুলো আলিঙ্গন করে আমায় গা ছুঁয়ে যায় ফুলেরা
ইচ্ছে করে সেখানেই ঘুমিয়ে পড়ি ফুলের আদরে
ক্রমাগত আঁধারের বুকে চাঁদ ঘুমায়
শুধু ফুলগুলো শিশির খেয়ে জেগে থাকে রাতভর
আর তারাগুলো মিটমিটিয়ে চাদের চাঁদনীর পাহারাদার
সেই জ্বলজ্বলে রাতে সৌন্দর্যের মোহনায় আমার ভেসে যেতে ইচ্ছে করে
ইচ্ছে করে হারিয়ে যাই নান্দনিক বনে…।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়