আইলাইফের নতুন ল্যাপটপ

আগের সংবাদ

ঢাকার চারদিকে রেললাইন নির্মানের চুক্তি সই

পরের সংবাদ

পুরান ঢাকায় কোনো কেমিক্যাল গোডাউন থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত হয়েছে: এপ্রিল ৩০, ২০১৯ , ৬:১৩ অপরাহ্ণ | আপডেট: এপ্রিল ৩০, ২০১৯, ৬:১৩ অপরাহ্ণ

কাগজ প্রতিবেদক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, পুরান ঢাকায় কোনো কেমিক্যাল গোডাউন থাকবে না। তিনি বলেন, কেমিক্যাল গোডাউনের জন্য বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক প্রকল্প নেয়া হয়েছে। এর আওতায় সব কেমিক্যাল গোডাউন স্থাপন করা হবে। মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) অনুষ্ঠিত জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় এ নির্দেশনা দেন তিনি। সভায় সভাপতিত্ব করেন একনেক চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সভায় এক হাজার ৬১৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ‘বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক’ প্রকল্পের অনুমোদন দেয়া হয়। প্রকল্পটির আওতায় মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানের ৩১০ একর জমিতে ২ হাজার ১৫৪টি প্লট তৈরি হবে। একই সঙ্গে ৫০ হাজার লোকের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি করা হবে। এ প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, পুরান ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে যারা কেমিক্যাল ব্যবসা করেন প্রকল্পে শুধু তাদেরই জমি বরাদ্দ দিতে হবে। কোনোভাবেই যেন অন্য কেউ প্রকল্প এলাকায় প্লট বরাদ্দ না পায়।

সভায় ৩ হাজার ৯৭১ কোটি টাকা ব্যয়ে ‘সিদ্ধিরগঞ্জ ৩৩৫ মেগাওয়াট কম্বাইন্ড সাইকেল পাওয়ার প্ল্যান্ট নির্মাণ’ প্রকল্পসহ প্রায় ১০ হাজার ১১৬ কোটি টাকায় ব্যয়ে সাতটি প্রকল্পের অনুমোদন দেয়া হয়। এর মধ্যে সরকার দেবে ৪ হাজার ৪০৬ কোটি টাকা। আর সংস্থার নিজস্ব অর্থায়ন থেকে ৪৯০ কোটি টাকা এবং প্রকল্প ঋণ পাওয়া যাবে ৫ হাজার ২২০ কোটি টাকা । প্রকল্পের বাস্তবায়ন প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, সব প্রকল্প যথাসময়ে বাস্তবায়ন করতে হবে।

এদিকে দুই হাজার ৪৭৯ কোটি টাকা ব্যয়ে ‘চট্টগ্রাম-ফেনী-বাখরাবাদ গ্যাস সঞ্চালন সমান্তরাল পাইপলাইন নির্মাণ’ প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়েছে। এ প্রকল্প প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, গ্যাস সঞ্চালন লাইন প্রকল্প যে জমি দিয়ে যাবে তা সঠিকভাবে চিহ্নিত করতে হবে। বর্তমান ও আগামী প্রজন্ম যেন বুঝতে পারে এই পথ দিয়ে গ্যাস লাইন নির্মিত হয়েছে। কারিগরি ও ভোকেশনাল শিক্ষায় জোর দিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, শুধু বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী নয়, মানবিকসহ অন্যান্য বিভাগের শিক্ষার্থীরাও যেন কারিগরি শিক্ষা গ্রহণ করতে পারে- সেবিষয়ে নজর দিতে হবে। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে।

সভায় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল, পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান, কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক, তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম, পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন, ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরীসহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।

  • আরও পড়ুন
  • লেখকের অন্যান্য লেখা