চট্টগ্রামে পৃথক দুর্ঘটনায় শিশুসহ নিহত ২

আগের সংবাদ

ময়মনসিংহ সিটির প্রথম মেয়র ইকরামুল হক টিটু

পরের সংবাদ

কঙ্গোতে নৌকা ডুবি: নিখোঁজ ১৫০

প্রকাশিত হয়েছে: এপ্রিল ১৭, ২০১৯ , ৭:৫৬ অপরাহ্ণ | আপডেট: এপ্রিল ১৭, ২০১৯, ৮:০৪ অপরাহ্ণ

অনলাইন প্রতিবেদক

যাত্রীবাহী নৌকা ডুবে অন্তত ১৫০ জন নিখোঁজ হয়ে গেছেন মধ্য আফ্রিকান দেশ কঙ্গোতে। দেশটির পূর্বাঞ্চলের কিভু লেকে নিখোঁজদের উদ্ধারে নিরাপত্তা বাহিনীর চলছে তৎপরতা। স্থানীয় সময় সোমবার (১৫ এপ্রিল) সন্ধ্যায় নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে। পরে বুধবার (১৭ এপ্রিল) বিষয়টি জানাজানি হয়।

কঙ্গোর প্রেসিডেন্ট ফেলিক্স সিসেকেদি ঘটনাটিকে অত্যন্ত দুঃখজনক মন্তব্য করে নিখোঁজদের পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন। টুইটে প্রেসিডেন্ট বলেছেন, সোমবার কিভু লেকে একটি পিরোগ (স্থানীয় নৌকা) ডুবে ১৫০ জন লোক নিখোঁজ থাকায় আমি অত্যন্ত দুঃখিত।

দক্ষিণ কিভু প্রদেশের ডেপুটি ভিটাল মুহিনি জানিয়েছেন, নৌকাডুবির ঘটনায় এ পর্যন্ত ৩৭ জনকে জীবিত এবং তিনজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। বাকিদের উদ্ধারে চলছে তৎপরতা। মুহিনি বলেন, পূর্ব কঙ্গোর গোমার কিতুকু বন্দর থেকে অতিরিক্ত মাল‍ামাল নিয়ে নৌকাটি যাত্রা করেছিল। পরে দক্ষিণ কিভু প্রদেশের উপকূলে এসে সেটি ডুবে যায়।

প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে, নৌকার যাত্রীদের লাইফ জ্যাকেট ছিল না এবং মোট যাত্রীর কোনো তালিকাও পাওয়া যায়নি। কঙ্গোর বাসিন্দাদের চলাচলের প্রধান মাধ্যমই হলো নৌপথ। এক শহর থেকে অন্য শহরে যেতে দেশটির বিভন্ন নদী এবং হ্রদে নিয়মিতই নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে।

এর আগে ২০১১ সালে বেশ কয়েকটি নৌ দুর্ঘটনার পর বরখাস্ত হয়েছিলেন সেখানকার পরিবহনমন্ত্রী। ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশনের তথ্যমতে, ২০১৫ সালে কঙ্গোতে দু’টি নৌকার মুখোমুখি সংঘর্ষে শতাধিক লোক নিখোঁজ হয়েছিলেন। সংস্থাটি জানায়, মূলত নৌকা বা জাহাজের অতিরিক্ত বয়স এবং নৌ চলাচলের নিয়ম অনুসরণ না করার কারণেই কঙ্গোতে নৌদুর্ঘটনায় প্রাণহানি ঘটছে।