নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যে ভ্যাট দিতে হবে না: অর্থমন্ত্রী

আগের সংবাদ

ডাকসু নির্বাচন সর্বাঙ্গীণ সুষ্ঠু হয়নি: আট শিক্ষকের পর্যবেক্ষণ

পরের সংবাদ

অবৈধ উপায়ে যুক্তরাষ্ট্র অভিমুখী বাংলাদেশিরা

প্রকাশিত হয়েছে: মার্চ ১১, ২০১৯ , ৯:১৭ অপরাহ্ণ | আপডেট: মার্চ ১১, ২০১৯, ৯:১৭ অপরাহ্ণ

Avatar

মাহবুবউদ্দিন চৌধুরী

এস্টোরিয়া, নিউইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র।

বিভিন্ন উপায়ে বহু বাংলাদেশি এখনো অবৈধ পথে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের চেষ্টা করছেন, তবে বর্তমান আমেরিকান সরকারের কঠোর ইমিগ্রেশন নীতির কারণে তা অনেকটা বিপজ্জনক। বেকারত্ব শুধু নয়, যুক্তরাষ্ট্রের মতো একটি ধনী দেশে যে কোনোভাবেই প্রবেশ করা অনেক বাংলাদেশির চিন্তাভাবনা। কিন্তু স্বপ্ন পূরণ হওয়া কষ্টকর।

এখানকার অনেক গণমাধ্যম জানিয়েছে, মেক্সিকো থেকে যুক্তরাষ্ট্রে অভিবাসন প্রত্যাশীদের মধ্যে বাংলাদেশিদের সংখ্যা কোনো অংশে কম নয়। পাশাপাশি কঙ্গো, দক্ষিণ এশিয়া ও মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশের লোকজন রয়েছে। মূলত বলে রাখা ভালো যুক্তরাষ্ট্রে অবৈধভাবে প্রবেশের চেষ্টা বিপরীতে জেল-জুলুম, নির্যাতন, এমনকি মৃত্যু হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

ট্রাম্প সরকার দিনের পর দিন নানা নির্বাহী আদেশ জারি করে ইতোমধ্যে দেশের অভ্যন্তরে এবং বহির্বিশ্বে আলোচনা-সমালোচনার ঝড় তুলেছেন। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাহী আদেশে জন্মসূত্রে নাগরিকত্ব কেড়ে নেয়ার ঘোষণা দেন। অথচ এ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রে জন্মগ্রহণ করা বেশিরভাগ শিশুই আইনগতভাবে মার্কিন নাগরিকত্ব পেয়ে আসছিল।

যুক্তরাষ্ট্রের সংবিধান এবং আদালতের সিদ্ধান্তেই এ অধিকার সংরক্ষিত আছে। যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি দপ্তর নিশ্চিত করেছে যে, অভিবাসন প্রত্যাশীদের মধ্যে এমন অনেকে আছেন, যারা অপরাধী চক্রের সদস্য বা অপরাধ সম্পৃক্ততার ইতিহাস রয়েছে।

তাই তাদের ঠেকানো শুধু অপরাধ দমন বা জাতীয় নিরাপত্তা সম্পর্কিত বিষয় নয়, বরং দেশের সার্বভৌমত্ব ও আইনের শাসনের জন্য তাদের ব্যাপারে ব্যবস্থা নেয়া জরুরি প্রয়োজন মনে করছে। সমগ্র মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বৈধ বাংলাদেশিদের সংখ্যা কয়েক লাখ হওয়া সত্ত্বেও দিন দিন এর সংখ্যা বাড়ছে।

তবে বিপথে যাওয়া কিছু বাংলাদেশির জন্য আজ বৈধ বাংলাদেশিকে আতঙ্কের মধ্যে থাকতে হয়। যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশিরা সুনাম অর্জন করতে সক্ষম হলেও কিছু তরুণ জঙ্গির কারণে বাংলাদেশের মান-সম্মান শুধু বিনষ্ট হচ্ছে তা নয়, যুক্তরাষ্ট্রের চাকরির বাজারে তার প্রভাব পড়েছে।

আজ অনেক বৈধ বাংলাদেশি যুক্তরাষ্ট্রে ভালো চাকরি থেকে বঞ্চিত। এই সেদিন যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে নিউইয়র্ক বাস টার্মিনালে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণের চেষ্টায় আহত বাংলাদেশ আকায়েদ সন্ত্রাসবাদের জন্য আদালত কর্তৃক দোষী সাব্যস্ত হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রে অভিবাসন প্রত্যাশীদের মধ্যে বাংলাদেশ ভারত ও আফ্রিকার বিভিন্ন দেশের লোকজন রয়েছে। এসব দেশ থেকে কেউ কেউ মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটে (আইএস) যোগ দিয়েছিল। ফলে অভিবাসন প্রত্যাশীদের ব্যাপারেও সন্দেহ করা হচ্ছে বলে মার্কিন মিডিয়াতে খবর বের হয়েছে।

উল্লেখ্য, বিভিন্ন সময় মেক্সিকো থেকে যুক্তরাষ্ট্রে অবৈধ অনুপ্রবেশ করতে গিয়ে এ পর্যন্ত বহু বাংলাদেশি আটক রয়েছেন। তবে এখানকার বাংলাদেশ দূতাবাস কর্মকর্তারা বলেছেন, তারা অবৈধ অভিবাসন সমর্থন করেন না। তথাপি এখনো বাংলাদেশের অনেক মানবপাচারকারী বহু নিরীহ বাংলাদেশির স্বপ্নের দেশ যুক্তরাষ্ট্রে নিরাপদে পৌঁছে দেয়ার মিথ্যা বা প্রতারণার আশ্রয় নিয়ে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে উধাও।

অনেক ক্ষেত্রে এখন বৈধ বা ভিসাপ্রাপ্ত বাংলাদেশিদের যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন এয়ারপোর্টে বিড়ম্বনার শিকার হতে হয়। কোনোভাবেই যেন অবৈধ পন্থায় যুক্তরাষ্ট্রে কোনো বাংলাদেশি পা না বাড়ায় সেদিকে স্ব স্ব পরিবার ও সরকারকে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানাই।

মাহবুবউদ্দিন চৌধুরী : এস্টোরিয়া, নিউইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র।