শ্রীনগরে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সামনে ময়লার ভাগাড়ে আগুন : দুর্ভোগে শিক্ষার্থীরা

আগের সংবাদ

ইন্টেলিজেন্স ভয়েস অ্যাসিস্টেন্স ব্রিনো

পরের সংবাদ

এডিবির ঋণ পাবেন ৪০ হাজার গ্রামীণ ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ৭, ২০১৯ , ৪:০৩ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ৭, ২০১৯ , ৪:০৩ অপরাহ্ণ

সারা দেশে ৪০ হাজার ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাকে ঋণ দেবে সরকার। এদের মধ্যে ৭০ শতাংশই হবে নারী। এ জন্য পল্লী-কর্মসহায়ক ফাউন্ডেশনকে (পিকেএসএফ) ৫ কোটি ডলার বা প্রায় ৪০০ কোটি টাকা ঋণ দিচ্ছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি)।
গতকাল বুধবার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের এনইসি-২ সম্মেলন কক্ষে একটি ঋণ চুক্তি সই অনুষ্ঠানে এসব তথ্য জানানো হয়। ঋণ চুক্তিতে সই করেন, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের ভারপ্রাপ্ত সচিব মনোয়ার আহমেদ এবং এডিবি কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ। এ সময় একটি প্রকল্প চুক্তিও সই হয়েছে। এতে পিকেএসএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুল করিম এবং এডিবির কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ সই করেন।
চুক্তি শেষে ইআরডি সচিব মনোয়ার আহমেদ বলেন, বর্তমান সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারে গ্রামীণ কর্মসংস্থান, নারীর ক্ষমতায়ন এবং শহরের সুবিধা নিশ্চিত করার ওপর গুরুত্ব দেয়া হয়েছে। এডিবির দেয়া এ ঋণ ইশতেহার বাস্তবায়নে ভ‚মিকা রাখবে। তিনি বলেন, প্রকল্প সময়মতো বাস্তবায়নের জন্য প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে এ বিষয়ে বৈঠক হবে। সেখানে প্রকল্প বাস্তবায়নের চ্যালেঞ্জগুলো নিয়ে আলোচনা হবে।
এডিবির কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ বলেন, বাংলাদেশ হচ্ছে এডিবি থেকে ঋণ নিয়ে ব্যবহারকারী দেশগুলোর মধ্যে অন্যতম। গ্রামীণ মানুষের আয় বাড়াতে ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের ঋণ দেয়া হবে। এর মধ্য দিয়ে প্রকল্পটি জিডিপি প্রবৃদ্ধি বাড়াতে ভ‚মিকা রাখবে। পিকেএসএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আব্দুল করিম বলেন, প্রকল্পটির মাধ্যমে সারা দেশে অঞ্চলভিত্তিক যেসব শিল্পের বিকাশ ঘটেছে সেসব শিল্প উদ্যোক্তা সহায়তা দেয়া হবে। তবে এই ঋণ এসএমই উদ্যোক্তাদের জন্য নয়। এসএমই-এর নিচে যারা পরিবারভিত্তিক শিল্প গড়ে তুলেছেন তাদের ঋণ দেয়া হবে। এ ছাড়া দ্বীপ, চরাঞ্চল, উপক‚লীয় এবং পার্বত্য অঞ্চলসহ পিছিয়ে পড়া অঞ্চলগুলোকে গুরুত্ব দেয়া হবে। এক প্রশ্নের জবাবে পিকেএসএফ-এর উপব্যবস্থাপনা পরিচালক ফজলুল কাদের জানান, ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারা ১২ শতাংশ হারে সুদের বিনিময়ে ঋণ পাবেন। এ ক্ষেত্রে যেসব উদ্যোক্তা জমির দাম বাদ দিয়ে ২০ লাখ টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ করতে পারবেন তারাই এ ঋণ পাওয়ার ক্ষেত্রে যোগ্য বিবেচিত হবেন। এ ছাড়া একজন উদ্যোক্তা ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত ঋণ পেতে পারেন।
চুক্তি সই অনুষ্ঠানে জানানো হয়, মাইক্রোইন্টারপ্রাইজ খাতকে শক্তিশালী করার মাধ্যমে দারিদ্র্য বিমোচন ও অর্থনৈতিক সমৃদ্ধির জন্য পিকেএসএফ প্রকল্পটি গ্রহণ করে। প্রস্তাবিত প্রকল্পের মাধ্যমে সপ্তম পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে দারিদ্র্য বিমোচন, গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর অর্থনৈতিক উন্নয়ন এবং নারী উদ্যোক্তাদের ঋণ দেয়া হবে। প্রকল্পটির মেয়াদকাল ২০১৯ সালের জানুয়ারি হতে ২০২০ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত এবং প্রকল্পের ঋণ সমাপ্তির তারিখ ২০২১ সালের জুন পর্যন্ত নির্ধারণ করা হয়েছে। আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের আওতায় পিকেএসএফ প্রকল্পটির বাস্তবায়নকারী সংস্থা হিসেবে কাজ করবে।
এ প্রকল্পের জন্য এডিবি ৫০ মিলিয়ন ডলার সমমূল্যের ইউরো এডিবির অর্ডিনারি ক্যাপিটাল রিসোর্সেস (ওসিআর) হতে পাওয়া যাবে। ওসিআর ঋণের সুদের হার ইউরো ইন্টারব্যাংক অফার্ড রেট (ইউআরআইবিওআর) ভিত্তিক। এ ঋণ ৫ বছর গ্রেস পিরিয়ডসহ ২০ বছরে পরিশোধযোগ্য এবং ঋণের জন্য অব্যয়িত অর্থের ওপর শূন্য দশমিক ১৫ শতাংশ হারে কমিটমেন্ট চার্য প্রযোজ্য হবে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়