ডিজিটাল আইন সাংবাদিকতার স্বাধীনতা খর্ব করবে না: আইনমন্ত্রী

আগের সংবাদ

ইসিতে পদোন্নতি হচ্ছে ৭৫ জনের, জনবলও বাড়ছে ২ হাজার

পরের সংবাদ

মালয়েশিয়ায় মাইনিং পুলে ৬ ডুবুরির মৃত্যু

প্রকাশিত হয়েছে: অক্টোবর ৪, ২০১৮ , ৯:২৫ অপরাহ্ণ | আপডেট: অক্টোবর ৪, ২০১৮, ৯:২৫ অপরাহ্ণ

মালয়েশিয়ার একটি অব্যবহৃত মাইনিং পুলে এক কিশোরকে বাঁচাতে গিয়ে ডুবে মারা গেছেন দমকল বিভাগের ছয় ডুবুরি। বুধবার বন্ধুদের সঙ্গে মাছ ধরতে গেলে পানিতে পড়ে নিখোঁজ হয় ১৭ বছর বয়সী ঐ কিশোর। তাকে উদ্ধার করতে গিয়েই মারা যান ছয় ডুবুরি। খবর বিবিসির।

কর্তৃপক্ষ বলছে, ডুবুরিরা একটি ‘ঘূর্ণিস্রোতের’ সংস্পর্শে চলে আসে। হঠাৎ প্রচণ্ড স্রোতে তাদের কিছু সরঞ্জাম খুলে পড়ে যায়।

বৃহস্পতিবার থেকে আবার নিখোঁজ কিশোরের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়।

খবরে বলা হয়, ঐ কিশোর এবং তার বন্ধুরা সেলাঙ্গর প্রদেশের সেপাং জেলার একটি মাইনিং পুলে মাছ শিকার করতে যায়।

সেপাং জেলা পুলিশ প্রধান আব্দুল আজিজ আলি জানান, ডুবুরিরা সব ধরনের নিরাপত্তা মেনেই পুলটিতে তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান শুরু করে। তাদের ডাইভিং-এর সব সরঞ্জাম পরেছিল এবং একটি দড়ি দিয়ে বাঁধা ছিল।

সংবাদ সংস্থা বারনামাকে আজিজ জানান, শক্তিশালী স্রোতের কারণে তারা সবাই পানিতে ডুবে যায়। এই কারণে তাদের সব সরঞ্জাম খসে পড়ে।

মালয়েশিয়ার দমকল বিভাগের মহাপরিচালক মুহাম্মদ হামদান ওয়াহিদ নিউ স্ট্রেইটস টাইমসকে জানান, পুলটিতে প্রবল ঘূর্ণিস্রোত সৃষ্টি হয়। ডুবুরিরা তীরে আসার প্রাণপণ চেষ্টা করেন। ছয় ডুবুরি প্রায় ৩০ মিনিট পানিতে ছিলেন। সহকর্মীরা তাদের উদ্ধারে চেষ্টা চালায়। তাদেরকে অচেতন অবস্থায় পানি থেকে উদ্ধার করে হয় এবং তাদের জ্ঞান আর ফেরানো যায়নি।

ওয়াহিদ জানান, মালয়েশিয়ায় এই প্রথম ছয় ডুবুরি একসঙ্গে মারা গেলেন। এটা খুবই দুঃখজনক আমাদের জন্য।

এই ঘটনার সেলেঙ্গর প্রাদেশিক সরকার মাইনিং পুলটি বন্ধের জন্য সেপাং মিউনিসিপ্যাল কাউন্সিলকে নির্দেশ দিয়েছে।