বিয়ের টাকা দান করলেন স্কট

মঙ্গলবার, ৭ এপ্রিল ২০২০

গত শনিবার নিজের বান্ধবী স্টেফের সঙ্গে বিয়ে হওয়ার কথা ছিল ইংলিশ ক্রিকেটার স্কট বোর্থউইকের। কিন্তু করোনার কারণে তাদের বিয়েটা আপাতত স্থগিত করে দিতে হয়েছে। নিজেদের বিয়েতে অথিতিদের আপ্যায়ন করার জন্য মদের বিল বাবদ বড় একটি অর্থ বরাদ্দ রেখেছিলেন। যেহেতু এই টাকাটি আপাতত লাগছে না তাই তারা দুজন মিলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তা ন্যাশনাল হেলথ কেয়ারে দান করে দিবেন। স্কট বোর্থউইক তার ইনস্টাগ্রাম একাউন্টে ব্যাপারটি নিশ্চিত করে বলেন, ‘মদের বিল বাবদ টাকাটি আমরা ন্যাশনাল হেলথ কেয়ারের কর্মীদের দিয়ে দিব। আর এটি আমাদের বিয়েতে যাদের আসার কথা ছিল তাদের পক্ষ থেকেই। হেলথ কেয়ারের কর্মীরা আমাদের পরবর্তী বিয়ের তারিখের জন্য কাজ করে যাচ্ছে তাদের স্যালুট।’ স্কট বোর্থউইক আরো জানিয়েছেন তারা তাদের বিয়েটা শীতকালীন মৌসুমে করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। আর তখন খুব ছোট পরিসরে তা করা হবে।

ইংলিশ এই ক্রিকেটার ইংল্যান্ডের হয়ে ১টি টেস্ট, ২টি ওয়ানডে ও ১টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন। তিনি ইংল্যান্ডে বেশ পরিচিত মূলত ইংল্যান্ডের কাউন্টি দল সারের হয়ে খেলেন।

য়খেলা ডেস্ক

ক্লাব পরিচিতি

বরুশিয়া মংচেংলাবাচ

বরুশিয়া ভেরেন ফুর লেবেসুবানগেন ১৯০০ ই ভি মংচেংলাবাচ জার্মানির একটি পেশাদার ফুটবল ক্লাব। বিশ্বব্যাপী যা শুধুমাত্র বরুশিয়া মংচেংলাবাচ নামে পরিচিত। তারা জার্মানির সর্বোচ্চ ফুটবল লিগ বুন্দেসলিগায় খেলে থাকে। বুন্দেসলিগায় তাদের প্রধান প্রতিপক্ষ হচ্ছে এফসি কন ও বায়ারলেভারকুসেন।

বরুশিয়া মংচেংলাবাচ শুধু জার্মানিতেই নয় পুরো ইউরোপে দারুণ পরিচিত ও সফল একটি ক্লাব। তারা এখন পর্যন্ত ৫ বার ঘরোয়া ফুটবল প্রতিযোগিতা বুন্দেসলিগার শিরোপা ও ৩ বার নক আউট প্রতিযোগিতা ডিএফবি-পোকালসের শিরোপা জিতেছে। আর ২ বার জিতেছে উয়েফা ইউরোপা লিগের শিরোপা।

বরুশিয়া মংচেংলাবাচ প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯০০ সালে। আর তাই এটির নামের সঙ্গে রয়েছে ১৯০০ সংখ্যাটি। তবে মংচেংলাবাচ প্রতিষ্ঠিত হয় কয়েকজন বিদ্রোহী খেলোয়াড়ের হাত ধরে। তৎকালীন জনপ্রিয় ক্লাব জার্মানিয়া ছেড়ে তারা এই ক্লাবটি প্রতিষ্ঠা করেন ১৮৯৯ সালে। তবে তা অফিসিয়ালি আত্মপ্রকাশ করে ১৯০০ সালে। আর তারা বুন্দেসলিগায় খেলার সুযোগ পায় ১৯৬৫ সালে। তাদের সেরা সাফল্য আসে সত্তরের দশকে। বরুশিয়া মংচেংলাবাচের নামটিও আসে মংচেংলাবাচ শহর থেকেই।

মংচেংলাবাচ তাদের হোম গ্রাউন্ড হিসেবে ব্যবহার করে বরুশিয়া পার্ক নামক একটি স্টেডিয়ামকে। ২০০৪ সাল থেকে স্টেডিয়ামটিকে ব্যবহার করছে তারা। এই স্টেডিয়ামটিতে একসঙ্গে বসে ৫৪ হাজার দর্শক খেলা দেখতে পারে। মংচেংলাবাচ এই স্টেডিয়ামে আসার আগে ব্যবহার করত বকেলবারস্তাদিওন নামক একটি স্টেডিয়ামকে। ১৯১৯ সাল থেকে শুরু করে ২০০৪ সাল পর্যন্ত এখানেই ছিল তারা।

:; খেলা ডেস্ক

গ্যালারি'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj