রিয়াল মাদ্রিদ চ্যাম্পিয়ন

শনিবার, ২৮ মার্চ ২০২০

কাগজ ডেস্ক : লা লিগায় চ্যাম্পিয়ন হলো রিয়াল মাদ্রিদ। এ শিরোনাম দেখে চমকে উঠবেন অনেকেই। চমকে ওঠারই কথা, কারণ করোনা ভাইরাসের কারণে তো খেলাই বন্ধ। রিয়াল মাদ্রিদ আবার চ্যাম্পিয়ন হয় কিভাবে? তবে খবরটি একেবারেই মিথ্যা না। লা লিগায় সত্যিই চ্যাম্পিয়ন হয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। সেটি ভিডিও গেমসে। স্প্যানিশ লা লিগার পৃষ্ঠপোষকতায় ও ই-স্পোর্টসের ধারাভাষ্যকার ইবাই লানোসের উদ্যোগে লা লিগায় খেলা ১৮টি দলের মধ্যে অনুষ্ঠিত হয় অনলাইন গেমিং প্রতিযোগিতা। আর এই অনলাইন প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ।

এই প্রতিযোগিতার উদ্দেশ্য ছিল তা থেকে আয় করে করোনা ভাইরাসে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষদের সহায়তা করা। প্রতিযোগিতাটিতে ১৮টি দলের একজন করে খেলোয়াড় এই ভিডিও গেমস প্রতিযোগিতায় দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। আর ২২ মার্চ অনুষ্ঠিত ফাইনাল ম্যাচে লেগানেসকে ৪-১ গোলে হারিয়ে শিরোপা জেতে রিয়াল মাদ্রিদ। অনলাইন এ প্রতিযোগিতায় রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে খেলেন মার্কো আসেনসিও। অন্যদিকে লেগানেসের হয়ে খেলেন আইতুর রুইবাল। তবে মজার তথ্য হলো ভিডিও গেমসে রিয়ালকে চ্যাম্পিয়ন বানানো মার্কো আসেনসিও হাঁটুর ইনজুরির কারণে পুরো মৌসুমজুড়েই মাঠের বাইরে রয়েছেন। লা লিগায় খেলে থাকে ২০টি দল। কিন্তু স্পন্সরসংক্রান্ত কারণে বার্সেলোনা ও রিয়াল মাল্লোরকা এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়নি।

মাঠে খেলা নেই তাই সমর্থকরাও ফুটবল খেলা দেখা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। তাদেরও দিন কাটছে ফুটবলবিহীন।

বসে থাকতে থাকতে তারাও যেন উদগ্রীব হয়ে গেছেন। আর তাই তো লা লিগার অনলাইন এ প্রতিযোগিতা দেখতে হুমড়ি খেয়ে পড়েন তারা। এই প্রতিযোগিতাটি অনলাইনে সরাসরি দেখানো হয়। আর সেটি দেখেন ১ লাখ ৭০ হাজার মানুষ। এই প্রতিযোগিতা থেকে আয়ও হয় বেশ ভালো। সব মিলিয়ে প্রতিযোগিতাটি ১ লাখ ৪০ হাজার ইউরো আয় করেছে। আর এই পুরো অর্থটিই দেয়া হবে ইউনিসেফকে। বৈশ্বিক এই সংঘটনটি এই অর্থ করোনা আক্রান্ত মানুষদের পেছনে ব্যয় করবে।

দর্শকদের এই অনলাইন প্রতিযোগিতা নিয়ে যেমন দর্শক আগ্রহ ছিল তেমনই স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যমগুলোও এটি নিয়ে বেশ মাতামাতি করেছে। মার্কা ও এ এসের মতো বিখ্যাত পত্রিকাগুলো প্রতিটি ম্যাচের লাইভ কভারেজ দিয়েছে ও ম্যাচসংক্রান্ত খবর প্রকাশ করেছে।

এই প্রতিযোগিতাটিও মূলত আয়োজন করা হয় স্পেনের ফুটবল সমর্থকদের সত্যিকারের ফুটবলের একটু স্বাদ দেয়ার জন্য। কারণ করোনার কারণে ফুটবল দেখতে না পেরে তারাও যে কিছুটা ঝিমিয়ে পড়েছে।

খেলা-ধূলা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj