ট্রেন্ড : ডিজেল ইঞ্জিনের হুনদাই ভেন্যু

রবিবার, ২২ মার্চ ২০২০

গত বছর ভারতে প্রথম প্রকাশ হয়েছিল ঐুঁহফধর এর সাব কম্প্যাক্ট এসইউভি ঠবহঁব। এতদিন দুটি পেট্রল ও একটি ডিজেল ইঞ্জিনে এই গাড়ি ভারতে পাওয়া যেত। এবার ১.৪ লিটার ডিজেল ইঞ্জিনের পরিবর্তে ১.৫ লিটার ট২ ঈজউর ডিজেল ইঞ্জিনসহ লঞ্চ হলো এই গাড়ি। সম্প্রতি করধ ঝবষঃড়ং -এও একই ইঞ্জিন ব্যবহার হয়েছিল। ১.৫ লিটার ইঝ৬ ডিজেল ইঞ্জিনে ঐুঁহফধর ঠবহঁব-র দাম ৮.০৯ লাখ টাকা থেকে শুরু হচ্ছে। যা ইঝ৪ ভেরিয়েন্টে এই গাড়ির থেকে ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ৩০ হাজার টাকা বেশি। নতুন গাড়িতে থাকছে একটি ১.৫ লিটার ইঝ৬ ডিজেল ইঞ্জিন। এই ইঞ্জিনে ৯৮.৬ নযঢ় শক্তি ও ২৪০ ঘস টর্ক পাওয়া যাবে। সঙ্গে থাকছে ৬ স্পিড ম্যানুয়াল গিয়ারবক্স। এছাড়াও ১.২ লিটার পেট্রল ইঞ্জিন ও ১.০ লিটার পেট্রল ইঞ্জিনে এই গাড়ি বিক্রি হয়।

ইঝ৫ দূষণ বিধি মেনে ১.৫ লিটার ডিজেল ইঞ্জিনসহ স¤প্রতি লঞ্চ হয়েছে ২০২০ ঐুঁহফধর ঈৎবঃধ। এছাড়াও ঐুঁহফধর ২০ ও করধ ঝড়হবঃ -এ একই ইঞ্জিন দেখা যাবে। যদিও ইঞ্জিন আপগ্রেড ছাড়া নতুন ঐুঁহফধর ঠবহঁব তে বিশেষ কোনো ফিচার যোগ হয়নি।

সূত্র : এনডি টিভি

ফ্যাশন (ট্যাবলয়েড)'র আরও সংবাদ

নারীর প্রিয় বাহন স্কুটিগত এক দশকে প্রজন্মের বাহন হিসেবে মোটর সাইকেলের জনপ্রিয়তা বেড়েছে কয়েক গুণ। চলতি পথে কম সময়ে গন্তব্যে পৌঁছানো ও গতিময়তার সম্মিলনে প্রিয় বাহন হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে মোটর সাইকেল। বর্তমানে কোথাও যেতে হলে পোহাতে হয় যানজটের ঝক্কি, তার ওপর সময়মতো গাড়ি পাওয়া যায় না, আর পেলেও প্রায়ই গুনতে হয় ডাবল ভাড়া। ফলে অফিস কিংবা গন্তব্যে যেতে প্রায়ই দেরি হয়ে যায়, পোহাতে হয় সীমাহীন দুর্ভোগ। এ সব ঝামেলা থেকে মুক্তি পেতে নিজের একটি বাহন এখন বেশ দরকারি। তাই পুরুষের পাশাপাশি আধুনিক অনেক নারীরই বাহন হিসেবে বেছে নিচ্ছেন পছন্দসই একটি মোটর সাইকেল। এ ক্ষেত্রে স্কুটিই এখন অনেক নারীর প্রথম পছন্দ-

Bhorerkagoj