অফিস না থাকলেও ফেসবুক-গুগল ভ্যাট রেজিস্ট্রেশন পাবে

রবিবার, ১ মার্চ ২০২০

কাগজ প্রতিবেদক : ঢাকায় আবাসিক অফিস না থাকলেও বৈশ্বিক প্রযুক্তি কোম্পানিগুলোকে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড সরাসরি বিজনেস আইডেন্টিফিকেশন নম্বর (বিআইএন) দেবে, যার মাধ্যমে সহজেই তাদের সেবার ওপর থেকে ভ্যাট আদায় করা যাবে। ফেসবুক-গুগল ছাড়াও ইউটিউব এবং মাইক্রোসফটকে বিআইএন দেয়ার নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে। মূলত কোম্পানিগুলো ভ্যাট প্রদানের ক্ষেত্রে জটিলতার বিষয়টি এনবিআরের সামনে তুলে ধরার পরেই এনবিআর তাদের নিয়ম কিছু শিথিল করার সিদ্ধান্ত নেয়।

এনবিআরের বিধানানুসারে বাংলাদেশে অফিস না থাকলে কেউ বিআইএন পায় না। তবে প্রযুক্তি কোম্পানিগুলোর ক্ষেত্রে বিশেষ বিবেচনায় বিধান শিথিল করছে এনবিআর, যাতে করে তারা তাদের সেবার ওপর থেকে সরাসরি ভ্যাট প্রদান করতে পারে। এনবিআরের এক কর্মকর্তা জানান, প্রতি বছর বাংলাদেশে থেকে এই চারটি কোম্পানির কাছ থেকে অন্তত দুই হাজার কোটি টাকার সেবা কেনা হয়। ১৫ শতাংশ হারে ভ্যাট ধরলে এখান থেকে সরকারের অন্তত ৩০০ কোটি টাকা প্রাপ্য। তাছাড়া প্রতিদিনিই এই খাতটি বড় হচ্ছে। সেক্ষেত্রে সরকার রাজস্ব আয়ের এত বড় একটি খাত হাতছাড়া করতে চাইবে কেন? বলছিলেন এনবিআরের ওই কর্মকর্তা। ১৮ ফেব্রুয়ারি এ সংশ্লিষ্ট একটি বৈঠকে এনবিআরের ভ্যাট উইং বিদেশি প্রযুক্তি কোম্পানিকে ভ্যাট নিবন্ধন দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

এনবিআর থেকে খুব দ্রুতই এ বিষয়ে একটি পরিপত্র জারি করে সিদ্ধান্ত কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছে সূত্রগুলো। চলতি বাজেটে বৈশ্বিক প্রযুক্তি কোম্পানি, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এবং ক্লাউড কম্পিউটিংয়ের ওপর ১৫ শতাংশ ভ্যাট বাধ্যতামূলক করেছে। জুলাই থেকেই এই ভ্যাট কার্যকর করা হয়েছে। কিন্তু অনাবাসী কোম্পানির বিআইএন নিবন্ধনের সুযোগ না থাকায় এটি কার্যকর করা যাচ্ছিল না।

অর্থ-শিল্প-বাণিজ্য'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj