বর্ণিল সাজে বিমা কোম্পানিগুলো

রবিবার, ১ মার্চ ২০২০

কাগজ প্রতিবেদক : প্রথম জাতীয় বিমা দিবস উপলক্ষ্যে বর্ণিল সাজে সেজেছে বিমা কোম্পানিগুলো। রাজধানীসহ সারাদেশে সরকারি বেসরকারি লাইফ ও নন-লাইফ বিমা কোম্পানিগুলোর ভবন ও কার্যালয়ে জ্বল জ্বল করছে বিভিন্ন রঙের বাতি। বাতাসে উড়ছে বিমা দিবসের রঙিন বেলুন। সৌন্দর্য বাড়িয়ে তুলেছে বিভিন রঙের ব্যানার-ফেস্টুন আর ইলেক্ট্রিক লাইটিং বোর্ড। নানান ডিজাইনের ফটকে টানানো হয়েছে বীমার বিভিন্ন তথ্যসংবলিত নির্দেশিকা। বীমা প্রতিষ্ঠানগুলোতে গিয়ে মিলেছে উৎসবমুখর পরিবেশ।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ১৯৬০ সালের ১ মার্চ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আলফা ইন্স্যুরেন্স কোম্পানিতে যোগদান করেন। দিনটিকে স্মরণে রাখতে এবং বীমা বিষয়ে সচেতনতা বাড়াতে বাংলাদেশ সরকার ১ মার্চকে জাতীয় বীমা দিবস হিসেবে ঘোষণা করেছে। সে অনুযায়ী আগামীকাল সারাদেশে যথাযোগ্য মর্যাদায় পালিত হবে জাতীয় বিমা দিবস। দিবসটি উপলক্ষ্যে অর্থমন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ, বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষসহ দেশের সরকারি বেসরকারি ৭৮টি লাইফ ও নন-লাইফ বীমা কোম্পানি বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। এরমধ্যে রয়েছে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও বিমা মেলা।

রোববার রাজধানী ঢাকায় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে দিবসটির উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দিবসটি উদযাপনের অংশ হিসেবে গতকাল শনিবার সকালে রাজধানী ঢাকায় বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মানিক মিয়া এভিনিউয়ে বাংলাদেশ পাট গবেষণা ইনস্টিটিউটের সামনে থেকে শুরু হয়ে জাতীয় সংসদ ভবনের প্রধান ফটকে শেষ হয় এ শোভাযাত্রা। বীমা খাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ও সংশ্লিষ্ট অন্যান্য প্রতিষ্ঠানসহ দেশের ৭৮টি বীমা কোম্পানির প্রায় সাড়ে ৩ হাজার কর্মকর্তা এই শোভাযাত্রায় অংশ নেন। এবারের জাতীয় বীমা দিবস উপলক্ষ্যে আগামী ২ মার্চ রাজধানীর হাতির ঝিলে আর্মি থিয়েটারে অনুষ্ঠিত হবে সঙ্গীতানুষ্ঠান। সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত চলবে এ অনুষ্ঠান। এ ছাড়াও দেশের সকল জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে জাতীয় বিমা দিবস উপলক্ষ্যে শোভাযাত্রা, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে।

অর্থ-শিল্প-বাণিজ্য'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj