লেনদেনের শীর্ষে প্রকৌশল খাত

শুক্রবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০

কাগজ প্রতিবেদক : ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গতকাল প্রকৌশল খাতের শেয়ারে বেশি টাকার লেনদেন হয়েছে। গতকাল লেনদেনে অংশ নেয়া ১৯টি খাতের ৩৫৫টি কোম্পানির ৭৭০ কোটি ৬০ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি অর্থাৎ ১৩২ কোটি ৭৬ লাখ টাকার বা ১৭.৫৫ শতাংশ লেনদেনের মাধ্যমে শীর্ষ স্থানে উঠে আসে এ খাত।

১১৯ কোটি ৫৮ লাখ টাকা বা ১৫.৮১ শতাংশ লেনদেন হয়ে দ্বিতীয় স্থানে বস্ত্র খাত এবং ৮৯ কোটি ১৭ লাখ টাকা বা ১১.৭৯ শতাংশ লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে উঠে আসে ওষুধ ও রসায়ন খাত। এছাড়া বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে ৬৬ কোটি ৫৪ লাখ টাকা বা ৮.৮০ শতাংশ, ব্যাংক খাতে ৪৭ কোটি ৩ লাখ টাকা বা ৬.২২ শতাংশ, বিমা খাতে ৪৪ কোটি ৯৪ লাখ টাকা বা ৫.৯৪ শতাংশ, টেলিযোগাযোগ খাতে ৪৪ কোটি ৬৬ লাখ টাকা বা ৫.৯০ শতাংশ, খাদ্য ও আনুষঙ্গিক খাতে ৩৯ কোটি ৯৭ লাখ টাকা বা ৫.২৮ শতাংশ, সিমেন্ট খাতে ৩৩ কোটি ৮৭ লাখ টাকা বা ৪.৪৮ শতাংশ, বিবিধ খাতে ৩০ কোটি ১৫ লাখ টাকা বা ৩.৯৯ শতাংশ, তথ্যপ্রযুক্তি খাতে ১৯ কোটি ১৭ লাখ টাকা বা ২.৫৩ শতাংশ, পেপার এন্ড প্রিন্টিং খাতে ১৭ কোটি ৩৭ লাখ টাকা বা ২.৩০ শতাংশ, মিউচুয়াল ফান্ড খাতে ১৭ কোটি ৩৬ লাখ টাকা বা ২.৩০ শতাংশ, আর্থিক খাতে ১৬ কোটি ৮২ লাখ টাকা বা ২.২২ শতাংশ, সিরামিক খাতে ১২ কোটি ৬৩ লাখ টাকা বা ১.৬৭ শতাংশ, চামড়া খাতে ৮ কোটি ৯৬ লাখ টাকা বা ১.১৮ শতাংশ, সেবা ও আবাসন খাতে ৬ কোটি ১৯ লাখ টাকা বা ০.৮২ শতাংশ, ভ্রমণ ও অবকাশ খাতে ৫ কোটি ৭ লাখ টাকা বা ০.৬৭ শতাংশ এবং পাট খাতে ৪ কোটি ২২ লাখ টাকা বা ০.৫৬ শতাংশ লেনদেন হয়েছে।

অর্থ-শিল্প-বাণিজ্য'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj