‘ইন্দুবালা গানের সঙ্গে সিনেমার কোনো সম্পর্ক নেই’

শনিবার, ৩০ নভেম্বর ২০১৯

ফজলুর রহমান বাবু। অভিনয়ের পাশাপাশি গায়ক হিসেবেও পেয়েছেন জনপ্রিয়তা। তার কণ্ঠে ‘ইন্দুবালা’ নামে একটি গান মানুষের হৃদয়ে জায়গা করে নেয়। এবার ‘ইন্দুবালা’ নামে একটি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। গতকাল সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছে। সিনেমার নানা প্রসঙ্গ নিয়ে মেলার মুখোমুখি হলেন ফজলুর রহমান বাবু। সাক্ষাৎকার : তৌহিদা তুষার

আপনার কণ্ঠে ‘ইন্দুবালা’ গানটি জনপ্রিয় হয়েছে। এবার একই নামে সিনেমা। এ বিষয়ে জানতে চাই?

আমার গাওয়া ইন্দুবালা গানটির সঙ্গে এই সিনেমার কোনো সম্পর্ক নেই। আমার এই সিনেমাটিতে অভিনয় করাও কাকতালীয়।

গানটি মানুষ পছন্দ করেছে। লাখ লাখ মানুষ এই গানটি শুনেছে। এটা আমার জন্য বড় পাওয়া। কিন্তু ‘ইন্দুবালা’ সিনেমাটি একেবারেই আলাদা গল্পে। শুধু নামের মিল ছাড়া গানের সঙ্গে সিনেমার কোনো সম্পর্ক নেই। সম্পূর্ণ আলাদা একটি গল্প নিয়ে এই সিনেমাটি লিখেছেন মাসুম আজিজ।

আমাকে এই সিনেমায় অভিনয় করতে প্রস্তাব দিয়েছে, অভিনয় করেছি। তবে ‘ইন্দুবালা’ নামটা আমার গাওয়া গানটার মাধ্যমেই পরিচিতি পেয়েছে। গানের গল্প আর সিনেমার গল্পে কোনো সম্পর্ক নেই।

সিনেমাটির শুটিং করেছেন কোথায়?

জয়পুরহাটের বিভিন্ন গ্রামে, বাজারে সিনেমাটির শুটিং করেছি। আমি টানা শুটিং করেছি। এই সিনেমায় আমার অভিনয় করাটাও হুট করেই। অনেকেই ভাবছেন গানটির জন্যই আমাকে নিয়েই সিনেমাটি হয়েছে। সেটা হয়নি। হুট করেই সিনেমাটিতে যুক্ত হওয়া, এরপর জয়পুরহাটে টানা শুটিং করেছি। ঢাকায়ও কিছু অংশ হয়েছে। বেশিরভাগ অংশই শুটিং হয়েছে জয়পুরহাটে।

সম্প্রতি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন। এই বিষয়ে জানতে চাই?

বদরুল আনাম সৌদ পরিচালিত ‘গহীন বালুচর’ সিনেমায় অভিনয়ের জন্য ২০১৭ সালের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে সেরা কৌতুক অভিনেতার পুরস্কার দেয়া হয়েছে আমাকে। এটা নিয়ে আমাকে যারা ভালোবাসেন তাদের মধ্যে কিছুটা মনোক্ষুণœ হয়েছে। আর আমিও সবাইকে বলেছি, এখনো বলব কৌতুক অভিনেতা বিষয়টা স্থুল না। অভিনয় করে লোক হাসানোর কাজটা খুবই কঠিন। পৃথিবীর বিখ্যাত অভিনেতাদের মধ্যে চার্লি চ্যাপলিন একজন। কৌতুক অভিনেতাকে আমি সম্মানের চোখে দেখি। তবে গহীন বালুচর সিনেমায় আমার যে চরিত্র, সেটা কৌতুক চরিত্র না।

এ সময়ের ব্যস্ততা নিয়ে শুনতে চাই?

এখন সিনেমা নিয়েই বেশি ব্যস্ত আছি। সম্প্রতি চয়নিকা চৌধুরীর ‘বিশ^ সুন্দরী’ সিনেমার কাজ শেষ করেছি। এ ছাড়া গিয়াস উদ্দিন সেলিমের ‘পাপপুণ্য’ সিনেমার কাজও শেষ হয়েছে। কিছুদিনের মধ্যেই সেন্সরবোর্ডে জমা দেয়া হবে ‘নোনা জলের কাব্য’। নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুলের পরিচালনায় ‘জ্যাম’ সিনেমায় অভিনয় করছি। এ ছাড়া ‘অর্জন ৭১’, ‘রাত জাগা ফুল’সহ বেশকিছু সিনেমায় অভিনয় করছি। এখন সিনেমা নিয়েই বেশি ব্যস্ত রয়েছি।

মেলা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj