লেপ-তোশক তৈরিতে ব্যস্ত ভেড়ামারার কারিগররা

শুক্রবার, ৮ নভেম্বর ২০১৯

ইসমাইল হোসেন বাবু, ভেড়ামারা (কুষ্টিয়া) থেকে : শীত এলেই লেপ বানানোর ধুম পড়ে যায় দোকানে দোকানে। কার্তিক মাসের মধ্যভাগ থেকে গ্রামীণ জনপদে শীতের আগমনী বার্তার কড়া নাড়া শুরু করে। শীত জেঁকে বসার আগে তাই লেপ-তোশক তৈরির ধুম লেগেছে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার সাধারণ মানুষের ঘরে ঘরে। ফলে লেপ-তোশকের দোকানে বাড়ছে বেচাকেনা। এসব দোকানের কর্মচারীদের এখন অলস সময় কাটানোর একদম ফুরসত নেই।

ভেড়ামারা পৌর এলাকাসহ ৭টি ইউনিয়নের বিভিন্ন হাট-বাজার ও পাড়া-মহল্লাতে লেপ-তোশক তৈরির কারিগররা এখন হাঁক-ডাক করে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। শুধু লেপ-তোশক তৈরিই নয়, শীতের আগমনী বার্তার সঙ্গে মানুষের পোশাক-পরিচ্ছদ ও ব্যবহার্য সামগ্রীতেও পরিবর্তন আসতে শুরু করেছে। পাতলা পোশাকের পরিবর্তে অনেকেই মোটা জামার দিকে ঝুঁকছেন। তাই এখন কদর বাড়তে শুরু করেছে গরম পোশাকেরও।

তবে বেশিরভাগ মানুষই শীত নিবারণে সাধারণত নির্ভর করেন লেপ-তোশকের ওপর। এ কারণে লেপ-তোশকের কারিগরদেরও শীত আসার আগে থেকেই শুরু হয় ব্যস্ততা। প্রতিবছরের মতো এবারও এর ব্যতিক্রম হচ্ছে না। লেপ-তোশকের দোকানের প্রায় সবকটিতেই ছিল অর্ডার দিতে আসা ক্রেতাদের ভিড়। দোকানিরাও অর্ডার গ্রহণ এবং বিভিন্ন রং ও মানের কাপড় ও তুলা দেখাতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন।

সারাদেশ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj