সিভাসুতে বক্তারা : পরিবেশ, প্রাণি ও মানুষকে একসূত্রে গাঁথতে হবে

শুক্রবার, ৮ নভেম্বর ২০১৯

চট্টগ্রাম অফিস : চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ^বিদ্যালয়ে (সিভাসু) ওয়ার্ল্ড ওয়ান হেলথ ডে-২০১৯ শীর্ষক আলোচনা সভায় বক্তারা বলেছেন, মানুষ, প্রাণি ও পরিবেশকে এক গ্রন্থিতে গাঁথতে হবে। তিনটি ইউংকে একই সূত্রে গাঁথা গেলে নানা সংক্রামক ব্যাধি থেকে পরিত্রাণ পাওয়া যাবে। সংক্রামক ব্যাধি বিশেষ করে ম্যালেরিয়া, চিকুনগুনিয়া, ডেঙ্গু, ইনফ্লুয়েঞ্জা ইত্যাদি অন্য রোগের কারণ হয়ে দাঁড়াচ্ছে। ফলে মানুষ বহুমাত্রিক রোগের ঝুঁকিতে রয়েছে। তাই ঝুঁকিমুক্ত হতে এখনই সচেতন হতে হবে।

বিশ^বিদ্যালয় ক্যাম্পাসে গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে এক সেমিনারে বক্তারা এ মন্তব্য করেন। তার আগে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, এনিম্যাল বায়োডাইভার্সিটি রোড শো, ফটোগ্রাফি কনটেস্টের পুরস্কার বিতরণ হয় বলে হতকাল বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানায় সিভাসু।

সেমিনারে বক্তারা বলেন, জীবাণুবাহী কীটপতঙ্গ দ্বারা পশু-পাখি আক্রান্ত হলে মানুষ ও পরিবেশ প্রভাবিত হয়। সবার স্বাস্থ্য সুরক্ষা নির্ভর করে আশপাশের পশু-পাখির স্বাস্থ্য ও পরিবেশের ওপর। তাই মানুষ ও প্রাণির স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করতে হলে পরিবেশের বিপর্যয় রোধ করতে হবে।

‘ওয়ান হেলথ চ্যালেঞ্জেস ফর দ্য টুয়েন্টি ফার্স্ট সেঞ্চুরি’ শিরোনামে প্রশাসনিক ভবনের কনফারেন্স রুমে প্রফেসর ড. শারমীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সেমিনারে বক্তব্য রাখেন প্রফেসর ড. জান্নাতারা খাতুন, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ ডা. ইমরান বিন ইউনুস।

আরো বক্তব্য রাখেন ইউএসটিসির সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ডা. প্রভাত চন্দ্র বড়–য়া, সিভাসুর শিক্ষক প্রফেসর ড. আবদুল আহাদ, প্রফেসর ড. পরিতোষ কুমার বিশ^াস, প্রফেসর ড. একেএম সাইফুদ্দীন, প্রফেসর ড. মো. কবিরুল ইসলাম খান প্রমুখ।

এই জনপদ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj