সূচক কমলেও বেড়েছে লেনদেন : উত্থান ধরে রাখতে পারেনি পুঁজিবাজার

মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯

কাগজ প্রতিবেদক : সমাপ্ত সপ্তাহের শেষ দুই কার্যদিবস বড় পতন হয়েছিল পুঁজিবাজারে। এরপর চলতি সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস গত রবিবার কিছুটা উত্থান হয়েছে। তবে এ উত্থান গতকাল সোমবার (২১ অক্টোবর) ধরে রাখতে পারেনি পুঁজিবাজার। এ দিন উভয় পুঁজিবাজারের সব সূচক কমেছে। একই সঙ্গে কমেছে লেনদেনে অংশ নেয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর। তবে টাকার পরিমাণে লেনদেন বেড়েছে। ঢাকা ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই ও সিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

যদিও পুঁজিবাজারের দৈন্যদশা কাটাতে বাংলাদেশ ব্যাংক সম্প্রতি একাধিক পদক্ষেপ নেয়। বাড়ানো হয়েছে বাণিজ্যিক ব্যাংকের ঋণ আমানত অনুপাত (এডিআর)। রেপোর (পুনঃক্রয় চুক্তি) মাধ্যমে অর্থ সরবরাহের সুযোগও দেয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে একটি ব্যাংক এ সুবিধা গ্রহণও করেছে।

এছাড়া পুঁজিবাজারে তারল্য বাড়াতে রাষ্ট্রায়ত্ত বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশ (আইসিবি) বিনিয়োগ বাড়িয়েছে। বন্ড বিক্রি করে সোনালী ব্যাংক থেকে পাওয়া ২০০ কোটি টাকা পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করছে প্রতিষ্ঠানটি।

পাশাপাশি পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের জন্য বাংলাদেশ ব্যাংক এবং সরকারি ৫টি প্রতিষ্ঠানের কাছে ২ হাজার কোটি টাকা চেয়েছে আইসিবি। এ টাকা পেলে তার পুরোটা পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করা হবে। এছাড়া ইউনিট ফান্ডের মাধ্যমে আইসিবিকে তহবিল সংগ্রহের সুযোগ দিতে চাচ্ছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এন্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

এতকিছুর পরেও ইতিবাচক ধারায় ফিরতে পারেনি পুঁজিবাজার।

গতকাল ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ২১ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ৭৬১ পয়েন্টে। অপর দুই সূচকের মধ্যে শরিয়াহ সূচক ১০ পয়েন্ট এবং ডিএসই-৩০ সূচক ১০ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ১০৯০ ও ১৬৭৫ পয়েন্টে।

ডিএসইতে আজ ৩৫০ কোটি ৪৯ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৩১২ কোটি ৬৩ লাখ টাকার। অর্থাৎ আজ ডিএসইতে লেনদেন ৩৭ কোটি ৮৬ লাখ টাকা বেড়েছে। ডিএসইতে আজ ৩৫৪টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৬৩টির বা ১৮ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর বেড়েছে। দর কমেছে ২৫০টির বা ৭১ শতাংশের এবং ৪১টি বা ১১ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে ইউনাইটেড পাওয়ারের। এ দিন কোম্পানিটির ১২ কোটি ৮২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসা ন্যাশনাল টিউবসের ১১ কোটি ৯৮ লাখ টাকার এবং ১১ কোটি টাকার শেয়ার লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে উঠে এসেছে প্রিমিয়ার ব্যাংক।

ডিএসইর টপটেন লেনদেনে উঠে আসা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে রয়েছে- ওয়াটা কেমিক্যাল, স্কয়ার ফার্মা, মুন্নু জুট স্টাফলার্স, প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্স, কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্স, সামিট পাওয়ার এবং ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই এ দিন ৫৫ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১৪ হাজার ৪৮৭ পয়েন্টে। এ দিন সিএসইতে হাত বদল হওয়া ২৫৫টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ৬৪টির, কমেছে ১৬১টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩০টির দর। গতকাল ২০ কোটি ৯১ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

অর্থ-শিল্প-বাণিজ্য'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj